আবারও বেড়েছে করোনায় মৃত্যু

৪ ঘণ্টার ব্যবধানে আবারও করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুর সংখ্যা বেড়েছে। একদিনে ১৯ জনের মৃত্যু হয়েছে। শুক্রবার (১৩ নভেম্বর) স্বাস্থ্য অধিদফতর থেকে পাঠানো করোনা বিষয়ক নিয়মিত সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এই তথ্য জানানো হয়েছে। আজকের ১৯ জনের মৃত্যু নিয়ে করোনায় এখন পর্যন্ত সরকারি হিসাব অনুযায়ী মোট মারা গেছেন ছয় হাজার ১৫৯ জন। বৃহস্পতিবারের হিসেবে (১২ নভেম্বর) একদিনে মৃত্যুর সংখ্যা ছিল ১৩ জন।

অপরদিকে, বৃহস্পতিবারের তুলনায় আজ শুক্রবার নতুন করে করোনা শনাক্ত হওয়ায় সংখ্যা কমেছে। গতকাল (১২ নভেম্বর) শনাক্ত হয়েছিলেন এক হাজার ৮৪৫ জন। আজ নতুন করে এক হাজার ৭৬৭ জনের কথা জানিয়েছে অধিদফতর। এ নিয়ে সরকারি হিসেবে বর্তমানে করোনা আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়েছেন চার লাখ ২৮ হাজার ৯৬৫ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন এক হাজার ৫১৯ জন এবং এখন পর্যন্ত তিন লাখ ৪৬ হাজার ৩৮৭ জনের সুস্থতার খবর জানিয়েছে সরকার।

বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, বর্তমানে দেশে ১১৫টি পরীক্ষাগারে করোনার নমুনা পরীক্ষা হচ্ছে। গত ২৪ ঘণ্টায় নমুনা সংগৃহীত হয়েছে ১৩ হাজার ৯৬৭টি। নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ১৩ হাজার ৫৩৯টি, দেশে এখন পর্যন্ত করোনার নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ২৫ লাখ ১৫ হাজার ৩৩৯টি।

গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা শনাক্তের হার ১৩ দশমিক শূন্য পাঁচ শতাংশ। এখন পর্যন্ত শনাক্তের হার ১৭ দশমিক শূন্য পাঁচ শতাংশ। শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৮০ দশমিক ৭৫ শতাংশ আর শনাক্ত বিবেচনায় মৃত্যুর হার এক দশমিক ৪৪ শতাংশ।

শুক্রবারের হিসাব অনুসারে, মারা যাওয়া ১৯ জনের মধ্যে পুরুষ ১৩ জন আর নারী ৬ জন। এখন পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত হয়ে পুরুষ মারা গেছেন চার হাজার ৭৪১ জন এবং নারী মারা গেছেন এক হাজার ৪১৮ জন। শতকরা হিসেবে পুরুষ ৭৬ দশমিক ৯৮ শতাংশ আর নারী ২৩ দশমিক শূন্য দুই শতাংশ।

স্বাস্থ্য অধিদফতর জানিয়েছে, মারা যাওয়া ১৯ জনের মধ্যে ষাটোর্ধ্ব ১৪ জন এবং ৫১ থেকে ৬০ বছরের মধ্যে রয়েছেন পাঁচ জন। ১৯ জনের সবাই হাসপাতালে মারা গেছেন। তাদের মধ্যে ঢাকা বিভাগে রয়েছেন ১৩ জন, রংপুর বিভাগে তিন জন আর রাজশাহী, খুলনা ও বরিশাল বিভাগে রয়েছে একজন করে।

গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন এক হাজার ৫১৯ জন। তাদের মধ্যে ঢাকা বিভাগে রয়েছেন এক হাজার ১১৭ জন, চট্টগ্রাম বিভাগে ২৩৩ জন, রংপুর বিভাগে ৩৬ জন, খুলনা বিভাগে ২৬ জন, বরিশাল বিভাগে ১৩ জন, রাজশাহী বিভাগে ২১ জন, সিলেট বিভাগে ৪২ জন আর ময়মনসিংহ বিভাগে রয়েছেন ৩১ জন।

গত ২৪ ঘণ্টায় কোয়ারেন্টিনে যুক্ত হয়েছেন ৭৯১ জন আর কোয়ারেন্টিন থেকে ছাড়া পেয়েছেন ৯৫১ জন। এখন পর্যন্ত কোয়ারেন্টিনে যুক্ত হয়েছেন পাঁচ লাখ ৬৪ হাজার ৪৭৬ জন আর ছাড়া পেয়েছেন পাঁচ লাখ ২৫ হাজার ৬২ জন। বর্তমানে কোয়ারেন্টিনে আছেন ৩৯ হাজার ৪১৪ জন।

অপরদিকে, গত ২৪ ঘণ্টায় আইসোলেশনে যুক্ত হয়েছেন ১৮৭ জন আর ছাড়া পেয়েছেন ২৫১ জন। এখন পর্যন্ত আইসোলেশনে যুক্ত হয়েছেন ৮৮ হাজার ১৭১ জন আর ছাড়া পেয়েছেন ৭৬ হাজার ৫৮ জন। বর্তমানে আইসোলেশনে আছেন ১২ হাজার ১১৩ জন।

আরও পড়ুন

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।