এক করোনা রোগীতেই বান্দরবান হাসপাতালের ১৭ জন হোম কোয়ারেন্টিনে

বান্দরবানের থানচির বড় মদকের সনাক্ত হওয়া এক করোনা রোগীর সংস্পর্শে আসায় বান্দরবান সদর হাসপাতালের চিকিৎসক ও নার্স সহ ১৭ জনকে হোম কোয়ারেন্টিনে পাঠানো হয়েছে ।

আজ বুধবার (২২ এপ্রিল) বিকালে এই তথ্য পাহাড়বার্তা’কে জানান জেলা সিভিল সার্জন ডা: অংসুই প্রু ।

তিনি জানান, থানচির বড় মদক থেকে আসা ওই রোগী বিভিন্ন উপসর্গ নিয়ে কিছুদিন আগে থানচি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি হয়। পরে দায়িত্বরত চিকিৎসকরা ওই ব্যক্তির নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষার জন্য পাঠায় । পরীক্ষার রিপোর্ট না আসার আগেই সে ভালো হয়ে গেছে বলে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের ডাক্তারদের বন্ড সাইন দিয়ে তার নিজ বাড়িতে ফিরে যায় বলে জানা যায় ।

কিন্তু পরে সে তথ্য গোপন করে বান্দরবানে সদর হাসপাতালে চলে আসে এবং সদর হাসপাতালের সাধারন ওয়ার্ডে ভর্তি হয় । চট্টগ্রাম থেকে ওই রোগীর করোনার পজেটিভ রিপোর্ট পাওয়ার পর আমরা তার খবর নিতে থাকি । পরে জানতে পারি, সে বান্দরবান সদর হাসপাতালের পুরুষ ওয়ার্ডে ভর্তি আছে। সাধারণ ওয়ার্ডে থাকার সময় সময় ওই রোগীর সংস্পর্শে আসে ৭ জন চিকিৎসক ও ১০ জন নার্স । তাই তাদের সবাইকে হোম কোয়ারেন্টিনে পাঠানো হয়েছে ।

সিভিল সার্জন ডা: অংসুই প্রু পাহাড়বার্তাকে আরো জানান, পুরো হাসপাতাল লকডডাউন করা হয়নি । শুধু পুরুষ ওয়ার্ডটি লকড ডাউন করা হয়েছে । মহিলা ওয়ার্ডের সেবা সহ সব ধরনের সেবা চালু থাকবে বলে জানান তিনি।

আরও পড়ুন

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।