খাগড়াছড়িতে ধর্ষণ মামলায় একজনের যাবজ্জীবন

খাগড়াছড়িতে এক নারীকে বিয়ে প্রলোভনে ধর্ষণের দায়ে বেলাল হোসেন (৩১) নামে শিক্ষানবিশ এক আইনজীবীকে যাবজ্জীবন দিয়েছে আদালত। আজ বুধবার (২৯জানুয়ারি) বিকেলে খাগড়াছড়ির নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের ভারপ্রাপ্ত বিচারক রেজা মো. আলমগীর হাসান এ রায় দেন। যাবজ্জীবন ছাড়াও দোষী ব্যক্তিকে ৫০ হাজার টাকা অর্থদন্ডে দন্ডিত করা হয়। রায় ঘোষণার সময় আসামী বেলাল হোসেন আদালতে উপস্থিত ছিল।

মামলার তথ্য অনুসারে, বিয়ের প্রলোভনে ২০১৩ সালে একাধিকবার ধর্ষণ করা হয় ভিকটিমকে। পরবর্তীতে বিয়ে করতে অস্বীকৃতি জানালে ভিকটিম বাদি হয়ে মাটিরাঙ্গা থানায় ২০১৪ সালের ২৬ জুন মামলা দায়ের করে। পুলিশ একই বছরের ১০ অক্টোবর চার্জশিট দিলে ৭ জনের সাক্ষী গ্রহণ করে আদালত। অভিযোগ সন্দেহাতীত ভাবে প্রমাণিত হওয়ায় আদালত অভিযুক্ত ব্যক্তিকে যাবজ্জীবন ও ৫০ হাজার টাকার অর্থদন্ডে দন্ডিত করে।

ভিকটিমের আইনজীবী এডভোকেট জসিম উদ্দিন মজুমদার রায়ে ন্যায় বিচার প্রতিষ্ঠা হয়েছে জানিয়ে বলেন, অভিযুক্ত ব্যক্তির বিরুদ্ধে সকল অভিযোগ সন্দেহাতীত ভাবে প্রমাণিত হওয়ায় বিচারক নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইন ২০০০ ও সংশোধিত ২০০৩ এর ৯ (১) ধারায় যাবজ্জীবন ও ৫০ হাজার টাকা অর্থদ- দিয়েছে।

আরও পড়ুন
Loading...