খাগড়াছড়িতে বাসে তুলে কিশোরীকে গণধর্ষণের অভিযোগ : গ্রেপ্তার ২

খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলায় এক কিশোরীকে জোরপূর্বক বাসে তুলে গণধর্ষণের অভিযোগে ২ জনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

আজ শনিবার সকালে খাগড়াছড়ি শহরের বাস টার্মিনালে অভিযান চালিয়ে পুলিশ পরিবহন শ্রমিক খাগড়াছড়ি সদরের আলী আহমদের ছেলে কামাল মিজি ও হবিগঞ্জের মাধবপুরের মৃত আব্দুল হামিদের ছেলে গদি মিস্ত্রি রফিকুল ইসলামকে
গ্রেপ্তার করে। ধর্ষণের কাজে ব্যবহৃত দু’টি বাস জব্দ করা হয়েছে ।

পুলিশ জানায়, গত রাতে পরিবারের সাথে টেলিভিশন দেখা নিয়ে অভিমান করে জেলা সদরের গুগড়াছড়ির বাড়ি থেকে বেরিয়ে আসে ধর্ষণের শিকার কিশোরী। রাত ৩ টার দিকে বাস টার্মিনাল এলাকায় ওই কিশোরীকে জোরপূর্বক বাসে তুলে গণধর্ষণ করে গ্রেপ্তারকৃতরা।

খাগড়াছড়ি বাস-মিনিবাস শ্রমিক ইউনিয়নের নেতা রতন ত্রিপুরা জানান, লক ডাউনের কারণে অন্যান্য বাসের মতো এই বাসটিও টার্মিনালে ফেলে ড্রাইভার বাড়িতে চলে যান। বাসটির হেলপারসহ আরেকজন ঘটনাটি ঘটায়।

এদিকে এই ঘটনায় কিশোরী বাবা বাদী হয়ে থানায় মামলা দায়ের করেছেন।

খাগড়াছড়ি সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মুহম্মদ রশিদ জানান, অভিযোগ পাওয়ার পর পুলিশ অভিযান চালিয়ে অভিযুক্তদের গ্রেপ্তার করে। গ্রেপ্তারকৃতদের আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে। তিনি আরো বলেন, কিশোরীকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য হাসপাতালে পাঠানো হয়।

আরও পড়ুন
আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।