খাগড়াছড়ির ৮ উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে ৪০ প্রার্থীর মনোনয়ন জমা

খাগড়াছড়িতে মনোনয়ন জমা দিচ্ছেন প্রার্থীরা
খাগড়াছড়ির ৮ উপজেলায় দ্বিতীয় ধাপে অনুষ্ঠিতব্য নির্বাচনে অংশগ্রহণের লক্ষ্যে ৪০ জন চেয়ারম্যান পদে, ৩৮ জন ভাইস চেয়ারম্যান পদে ও ৩১ জন মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে মনোনয়নপত্র দাখিল করেছে। আজ সোমবার মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষদিনে রিটার্নিং অফিসার ও সহকারী রিটার্নিং অফিসারদের কাছে প্রার্থীরা দলীয় নেতাকর্মী ও সমর্থকদের নিয়ে মনোনয়নপত্র দাখিল করেন।
খাগড়াছড়ি সদর উপজেলা চেয়ারম্যান পদে আওয়ামীলীগের প্রার্থী মো: শানে আলম, জাতীয় পার্টির প্রার্থী মো: নজরুল ইসলাম, ন্যাশনাল পিপল্স পার্টির প্রার্থী মো: আয়নাল হক, আঞ্চলিক অনিবন্ধিত সংগঠন জনসংহতি সমিতি এমএন লারমা গ্রæপ সমর্থিত প্রার্থী তরুণ আলো দেওয়ান ও ইউপিডিএফ সমর্থিত বর্তমান চেয়ারম্যান চঞ্চুমনি চাকমা মনোনয়নপত্র দাখিল করেছে। এছাড়া ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৮ জন ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৪ জন প্রার্থী মনোনয়নপত্র দাখিল করেছে।
পানছড়ি উপজেলায় আওয়ামীলীগ সমর্থিত চেয়ারম্যান প্রার্থী বিজয় কুমার দেব ও আঞ্চলিক অনিবন্ধিত সংগঠন ইউপিডিএফ গণতান্ত্রিক সমর্থিত স্বতন্ত্র প্রার্থী মিঠন চাকমা, জনসংহতি সমিতি এমএন লারমা গ্রুপ সমর্থিত স্বতন্ত্র প্রার্থী শ্যামল কান্তি চাকমা, ইউপিডিএফ প্রসীত সমর্থিত স্বতন্ত্র প্রার্থী অনীল চন্দ্র চাকমা ও শান্তি জীবন। এছাড়া ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৭ জন ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৩ জন প্রার্থী মনোনয়নপত্র দাখিল করেছে।
মানিকছড়ি উপজেলায় আওয়ামীলীগ সমর্থিত চেয়ারম্যান প্রার্থী জয়নাল আবেদীন একমাত্র চেয়ারম্যান পদে মনোনয়নপত্র দাখিল করেছে। এছাড়া ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৫ জন ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৪ জন প্রার্থী মনোনয়নপত্র দাখিল করেছে।
ল²ীছড়ি উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে আওয়ামীলীগ সমর্থিত প্রার্থী বাবুল চৌধুরী, উপজেলা পরিষদের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান স্বতন্ত্র প্রার্থী (ভাইস চেয়ারম্যান) উগ্য প্রু মারমা, বর্মাছড়ি ইউপির সাবেক ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান স্বতন্ত্র প্রার্থী স্বপন চাকমা, সদর ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান স্বতন্ত্র প্রার্থী রাজেন্দ্র চাকমা ও বর্মাছড়ি ইউপির সাবেক চেয়ারম্যান স্বতন্ত্র প্রার্থী নীলবর্ণ চাকমা মনোনয়নপত্র দাখিল করেছে। এছাড়া ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৩ জন ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৪ জন প্রার্থী মনোনয়ন দাখিল করেছে।
দীঘিনালা উপজেলায় আওয়ামীলীগ সমর্থিত চেয়ারম্যান প্রার্থী হাজী মো: কাশেম, আঞ্চলিক অনিবন্ধিত সংগঠন জনসংহতি সমিতি এমএন লারমা সমর্থিত স্বতন্ত্র প্রার্থী রাজ্যময় চাকমা, প্রফুল্ল কুমার চাকমা, ইউপিডিএফ সমর্থিত স্বতন্ত্র প্রার্থী উমেশ কান্তি চাকমা, স্বতন্ত্র প্রার্থী ধর্ম্মবীর চাকমা, বিশ্ব কল্যাণ চাকমা, সাধন চন্দ্র চাকমা ও প্রিয়দর্শী চাকমা মনোনয়নপত্র দাখিল করেছে। এছাড়া ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৪ জন এবং মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৩ জন প্রার্থী মনোনয়ন পত্র দাখিল করেছে।
মহালছড়ি উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে আঞ্চলিক অনিবন্ধিত সংগঠন জনসংহতি সমিতি এমএন লারমা গ্রুপ সমর্থিত প্রার্থী বিমল কান্তি চাকমা(বর্তমান চেয়ারম্যান),কাকলী খীসা (বর্তমান মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান), স্বতন্ত্র প্রার্থী সোনা রতন চাকমা, হুমায়ুন কবির,ক্যাজই মারমা ও সুকুমার চাকমা মনোনয়নপত্র দাখিল করেছে। এছাড়া ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৪ জন ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৩ জন প্রার্থী মনোনয়নপত্র দাখিল করেছে।
রামগড় উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে আওয়ামীলীগ সমর্থিত প্রার্থী বিশ্ব প্রদীপ কুমার কার্বারী, আওয়ামীলীগের বিদ্রোহী প্রার্থী উপজেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম আহবায়ক কাজী নুরুল আলম আলমগীর, উপজেলা যুবলীগ সভাপতি ও বর্তমান ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান আব্দুল কাদের, পৌর আওয়ামীলীগের আহবায়ক রফিকুল আলম কামাল ও সাবেক জেলা পরিষদ সদস্য আবু বক্কর সিদ্দিক। এছাড়া ভাইস চেয়ারম্যান পদে ২ জন ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৩ জন প্রার্থী মনোনয়নপত্র দাখিল করেছে।
মাটিরাঙায় উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে আওয়ামীলীগ সমর্থিত প্রার্থী রফিকুল ইসলাম, বিদ্রোহী প্রার্থী উপজেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক তাজুল ইসলাম, ন্যাশনাল পিপল্স পার্টি সমর্থিত প্রার্থী শেখ ছালাউদ্দিন ছালু ও স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী মোহাম্মদ আলী ভূইয়া মনোনয়নপত্র দাখিল করেছে। এছাড়া ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৫ জন ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৫ জন প্রার্থী মনোনয়পত্র দাখিল করেছে।
খাগড়াছড়ির ৮ উপজেলায় দ্বিতীয় ধাপে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে আগামী ১৮ মার্চ। আগামী ২০ ফেব্রুয়ারি প্রার্থীতা যাচাই বাছাই করা হবে। খাগড়াছড়ি সদর, পানছড়ি, মানিকছড়ি ও লক্ষী ছড়ি উপজেলার রিটার্নিং অফিসারের দায়িত্ব পালন করবেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক কাজী মোহাম্মদ চাহেল তস্তরী। দীঘিনালা, মহালছড়ি, রামগড় ও মাটিরাঙা উপজেলার রিটার্নিং অফিসারের দায়িত্ব পালন করবেন জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মোহাম্মদ জাহিদ হোসেন।

আরও পড়ুন

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।