জেনে নিন কোন উপজেলায় কি পরিমান ত্রাণ দিলো পার্বত্য জেলা পরিষদ

করোনা সংকটের শুরু থেকে বান্দরবান পার্বত্য জেলার ২টি পৌরসভা ও ৩৩ টি ইউনিয়নে অসহায়, গরীব মানুষদের মাঝে ত্রাণ বিতরণের উদ্দ্যেগ গ্রহন করে বান্দরবান পার্বত্য জেলা পরিষদ।

বান্দরবান পার্বত্য জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ক্যশৈহ্লা এর নির্দেশে পার্বত্য জেলা পরিষদের ৫ সদস্য বিশিষ্ট কমিটি জেলার উপজেলাগুলোতে সুষ্ট ভাবে ত্রাণ বিতরণের লক্ষ্যে কাজ করছে। জেলা পরিষদের সদস্যরা ত্রাণ নিয়ে হাজির হচ্ছেন জেলার দূর্গম এলাকার পাহাড়ী পল্লীতে পর্যন্ত। ঘরে ঘরে পৌছে দিচ্ছেন চাল,ডাল,তেল,লবন, হ্যান্ড স্যানিটাইজার,মাস্কসহ খাবার। জেনে নিন আপনার এলাকায় পার্বত্য জেলা পরিষদের ত্রাণের বরাদ্ধ কি পরিমান। আর এ নিয়ে এস বাসু দাশ এর প্রতিবেদন।

বান্দরবান পার্বত্য জেলা পরিষদ সূত্র জানায়, বান্দরবান সদর উপজেলা (পৌরসভাসহ) ৫টি ইউনিয়ন ও ১টি পৌরসভায় ৩ হাজার ৬শ পরিবারকে ৮ কেজি করে ২৮.৮০ মেট্রিক টন চাউল, ১ কেজি করে ৩.৬০ মেট্রিক টন ডাল,১ কেজি করে ৩.৬০ মেট্রিক টন লবন।

লামা উপজেলায় ৭টি ইউনিয়ন ও ১টি পৌরসভার ৪ হাজার ৫শ পরিবারকে ৮ কেজি করে ৩৬.০০ মেট্রিক টন চাউল, ১ কেজি করে ৪.৫০ মেট্রিক টন ডাল, ১ কেজি করে ৪.৫০ মেট্রিক টন লবন।

রোয়াংছড়ি উপজেলায় ৪টি ইউনিয়নে ১ হাজার ৮শ পরিবারকে ৮ কেজি করে ১৪.৪০ মেট্রিক টন চাউল, ১ কেজি করে ১.৮০ মেট্রিক টন ডাল, ১কেজি করে ১.৮০ মেট্রিক টন লবন।

রুমা উপজেলায় ৪টি ইউনিয়নে ১ হাজার ৮শ পরিবারকে ৮ কেজি করে ১৪.৪০ মেট্রিক টন চাউল, ১ কেজি করে ১.৮০ মেট্রিক টন ডাল, ১কেজি করে ১.৮০ মেট্রিক টন লবন।

থানচি উপজেলায় ৪টি ইউনিয়নে ১ হাজার ৮শ পরিবারকে ৮ কেজি করে ১৪.৪০ মেট্রিক টন চাউল, ১ কেজি করে ১.৮০ মেট্রিক টন ডাল, ১কেজি করে ১.৮০ মেট্রিক টন লবন।

আলীকদম উপজেলায় ৪টি ইউনিয়নে ১ হাজার ৮শ পরিবারকে ৮ কেজি করে ১৪.৪০ মেট্রিক টন চাউল, ১ কেজি করে ১.৮০ মেট্রিক টন ডাল, ১কেজি করে ১.৮০ মেট্রিক টন লবন।

নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলায় ৫টি ইউনিয়নে ২ হাজার ২৫০ পরিবারকে ৮ কেজি করে ১৮.০০ মেট্রিক টন চাউল, ১ কেজি করে ২.২৫০ মেট্রিক টন ডাল, ১ কেজি করে ২.২৫০ মেট্রিক টন লবন।

এই ব্যাপারে বান্দরবান পার্বত্য জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ক্যশৈহ্লা বলেন, অসহায় মানুষের ঘরে ঘরে ত্রাণ পৌছানোর জন্য পার্বত্য জেলা পরিষদের সদস্যরা র্নিঘুম রাত পার করছে। যেসব এলাকায় সড়ক যোগাযোগ নেই, সেইসব এলাকায় সেনাবাহিনীর সহায়তায় পরিষদের ত্রাণ পৌছে যাবে, সেই উদ্দ্যেগও গ্রহন করা হয়েছে।

আরও পড়ুন

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।