জেলা পরিষদের দুই সদস্যসহ ৬৪জনের বিরুদ্ধে মামলা, আটক-১

জেলা সদরের নুনছড়ি থলিপাড়া এলাকায় গত বৃস্পতিবার রাতে পূর্ব শত্রুতার জেরে প্রতিপক্ষের হামলায় পিতা পুত্র নিহত ও একই পরিবারের দু’জন আহত ও একজনকে গণধর্ষণের অভিযোগে মামলা হয়েছে। শুক্রবার রাতে খাগড়াছড়ি সদর থানায় নিহত চিরঞ্জিৎ ত্রিপুরা ছেলে নিহার কান্তি ত্রিপুরা বাদী হয়ে খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা পরিষদের সদস্য আওয়ামীলীগ নেতা মংসাপ্রু চৌধুরী অপু, অপর সদস্য খোকনেশ্বর ত্রিপুরা, ইউপি সদস্য কালি বন্ধু ত্রিপুরাসহ ৩৪জনের নাম উল্লেখ এবং অজ্ঞাত ৩০জনকে আসামী করে হত্যা, গণধর্ষণ, লুটপাটের অভিযোগ তুলে মামলা দায়ের করেন। মামলার এজাহারভুক্ত ব্রত ত্রিপুরা নামে একজনকে আটক করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন সদর থানার অফিসার ইনচার্জ(ওসি) তারেক মোহাম্মদ আব্দুল হান্নান। ওসি আরও বলেন, গণধর্ষণের শিকার নারী কার্বারীকে শারীরিক পরীক্ষা করে আলামত সংগ্রহ করা হয়েছে। অন্যান্য আসামীদের গ্রেফতারে পুলিশের অভিযান অব্যাহত আছে।
উল্লেখ্য, বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় জেলা সদরের নুনছড়ি এলাকায় পূর্ব শত্রুতার জেরে প্রতিপক্ষের হামলায় চিরঞ্জিৎ ত্রিপুরা, তাঁর ছেলে কর্ণ ত্রিপুরাকে গুলি করে হত্যা করা হয়। এসময় একই পরিবারের দুইজনকে আহত করা হয় এবং নিহত কর্ণ ত্রিপুরার স্ত্রীকে গণধর্ষণ করা হয়।

আরও পড়ুন
আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।