জয় হত্যাকারীরা গ্রেফতার না হলে রাঙামাটি অচল করে দেয়া হবে

ছাত্রলীগ নেতা জয় ত্রিপুরার হত্যাকারীদের অবিলম্বে গ্রেফতার করে আইনের আওতায় আনা না হলে হরতাল, অবরোধ দিয়ে রাঙাামাটি শহর অচল করে দেয়ার হুঁশিয়ারী দেন যুবলীগ ও ছাত্রলীগের নেতারা।

এছাড়া, এ হত্যাকান্ডের সাথে গভীর ষড়যন্ত্র লুকিয়ে আছে কিনা, তাও খতিয়ে দেখার দাবি জানান তারা।
রাঙামাটি জেলা ছাত্রলীগের আয়োজনে আজ শুক্রবার (১৮ মার্চ) সকালে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের সামনে ছাত্রলীগ নেতা জয় ত্রিপুরা হত্যার প্রতিবাদে বিক্ষোভ মিছিল ও প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

সমাবেশে জেলা ছাত্রলীগ সভাপতি আব্দুর জব্বার সুজনের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক প্রকাশ চাকমার সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন যুবলীগ সভাপতি পৌরমেয়র মোঃ আকবর হোসেন চৌধুরী, উপজেলা চেয়ারম্যান শহীদুজ্জামান মহসীন রোমান, যুবলীগ নেতা ঝিনুক ত্রিপুরা, শ্রমিক লীগ নেতা সামশুল আলম, ছাত্রলীগের পৌর সভাপতি মোঃ আলাউদ্দিন, সদর সভাপতি মোঃ নজরুল। সমাবেশে যুবলীগ, ছাত্রলীগ, স্বেচ্চাসেবক লীগের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতাকর্মীরা অংশ নেয়।

বক্তারা বলেন, ঘটনাস্থল রাঙামাটি শহরের গুরুত্বপুর্ণ স্থান হওয়ার পরও, কাকতালীয়ভাবে ঐদিন এলাকার কয়েকটি সিসি ক্যামেরা বন্ধ থাকায় আমরা বিস্মিত হয়েছি। নিঃসন্দেহে এটি একটি পরিকল্পিত হত্যাকান্ড। এর সাথে গভীর ষড়যন্ত্র লুকিয়ে আছে। প্রশাসনকে অতিদ্রুত এ হত্যাকান্ডের পর্দা উন্মোচন করতে হবে। আগামী এক সপ্তাহের মধ্যে জয় ত্রিপুরার হত্যাকারীদের অবিলম্বে গ্রেফতার করে আইনের আওতায় আনা না হলে হরতাল, অবরোধ দিয়ে রাঙাামাটি শহর অচল করে দেয়া হবে।

প্রসঙ্গতঃ গত ১৬ মার্চ মধ্যরাতে জেনারেল হাসপাতাল থেকে জেলা আওয়ামী লীগের অসুস্থ নেতা জমির উদ্দিনকে দেখে বাড়ি ফেরার পথে হাসপাতাল গেটে দুর্বৃত্তের ছুরিকাঘাতে মৃত্যুবরণ করেন সদর উপজেলা ছাত্রলীগের উপ প্রচার সম্পাদক জয় ত্রিপুরা।

আরও পড়ুন
আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।