দেশের মানুষ শান্তিতে নেই : সাচিং প্রু জেরী

বান্দরবানে জেলা বিএনপি’র আয়োজনে কলো পতাকা মিছিল ও বিক্ষোভ সমাবেশ
দেশের মানুষ শান্তিতে নেই, সরকার দেশী-বিদেশী নাগরিকদের নিরাপত্তা দিতে সম্পূর্ণ ব্যর্থতার প্রমান দিয়েছে। সরকারের উচিৎ নিরপেক্ষ নির্বাচনের মাধ্যমে দেশে গণতন্ত্র ফিরিয়ে নিয়ে আসা, তখন মানুষকে আর বিনা বিচারে জেল খাটতে হবে না,সাধারণ মানুষকে খুন,গুম করা বন্ধ হয়ে যাবে। দেশের সাধারণ মানুষ আইনের সু-শাসন ও ন্যায় বিচার পাবে। আসুন আমরা সকলে গণতন্ত্র রক্ষার্থে আন্দোলনে নেমে পড়ি। বৃহস্পতিবার বিকালে বান্দরবান হক হিল মার্কেটের সামনে গণতন্ত্র হত্যা দিবস উপলক্ষে বান্দরবানে জেলা বিএনপি’র আয়োজনে কলো পতাকা মিছিল ও বিক্ষোভ সমাবেশ এসব কথা বলেন জেলা বিএনপির সভাপতি সাচিং প্রু জেরী
কালো পতাকা মিছিল ও বিক্ষোভ সমাবেশে বান্দরবান জেলা বিএনপির সভাপতি ও সাবেক সংসদ সদস্য সাচিং প্রু জেরী এর সভাপতিত্বে অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, বান্দরবান জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আজিজুর রহমান,পৌর বিএনপির সভাপতি নাছির উদ্দীন চৌধুরী, পৌর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক নজরুল ইসলাম,সেচ্ছাসেবক দলের নেতা জাহাঙ্গীর আলম,জেলা মহিলা দলের আহবায়িকা কাজী নিরুতাজ বেগম,যুগ্ন-আহবায়িকা উম্মে কুলসুম নীলা,পৌর বিএনপির সিনিয়র সহ-সভাপতি ফেরদৌস হায়দার রুশু।
আরো উপস্থিত ছিলেন, জেলা সেচ্ছাসেবক দলের দপ্তর সম্পাদক মোঃ হাবিবুর রহমান,বান্দরবান জেলা যুব-দলের যুগ্ন আহবায়ক মোঃ হারুনুর রশিদ,বান্দরবান জেলা যুব-দলের সদস্য সচিব শাহাদত হোসেন জনি, যুবদলের যুগ্ন আহবায়ক শিমুল দাশ,জেলা ছাত্র দলের সাধারণ সম্পাদক দৌলতুল কবির খান ছিদ্দিকী, জেলা ছাত্র দলের ১নং যুগ্ন-সম্পাদক উমর ফারুক রাশেদ,পৌর সেচ্ছাসেবক দলের সাধারণ সম্পাদক মোঃ মোছা হাওলাদার,জেলা ছাত্র দলের সহ-সভাপতি মোঃ জিয়া উদ্দীন,উপজেলা ছাত্র দলের সভাপতি মোঃ আলাউদ্দীন আলো,থানা ছাত্র দলের সভাপতি আশরাফুল আলম ফরহাদ, পৌর বিএনপির দপ্তর সম্পাদক মোঃ জিয়া উর রহমানসহ বিএনপি’র অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের নেতা-কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।
গণতন্ত্র হত্যা দিবস উপলক্ষে কালো পতাকা মিছিল বিএনপির কার্যালয় থেকে বের হলে কিছু দূর যাওয়ার পর পুলিশের বাধাঁর মুখে পরে, মিছিলটি পরে হক হিল টাওয়ার এর সামনে বিক্ষোভ সমাবেশ করে,বিক্ষোভ সমাবেশে বক্তারা বলেন,আমরা জাতীয় কর্মসূচীর অংশ হিসেবে বান্দরবানে কালো পতাকা মিছিল ও বিক্ষোভ সমাবেশের আয়োজন করেছি।
এসময় বিএনপির নেতারা আরো বলেন, আজ ৫ জানুয়ারী গণতন্ত্র হত্যা দিবস হিসেবে গত ২০১৪ সাল থেকে পালন করে আসছে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল (বিএনপি)। এই দিনে বাংলাদেশের গণতন্ত্রকে হত্যা করেছে বর্তমান আওয়ামীলীগ সরকার। আমরা গণতান্ত্রিক উপায়ে আন্দোলনের মাধ্যমে গণতন্ত্রকে আবার ফিরিয়ে আনবো। আমরা শহীদ জিয়ার আদর্শ নিয়ে রাজনীতি করি,বর্তমান সরকার পুলিশ বাহিনীকে তাদের লাঠিয়াল ও ক্যাডার বাহিনী হিসেবে ব্যবহার করে বিরোধী দলের নেতা কর্মীদের উপর মিথ্যা মামলা,হত্যা,গুমসহ নানা অগণতান্ত্রিক পন্থা অবলম্বন করে দেশের গণতন্ত্রকে ধ্বংস করে দিয়েছে। আমরা গণতন্ত্র বিশ্বাস করি, দেশে এখন গণতন্ত্র বলতে কিছুই নেই,সরকার দেশে সন্ত্রাস, নৈরাজ্য, খুন, গুম, নিরহ জনগনকে আটক করে রিমান্ডে নিয়ে নির্যাতন চালিয়ে যাচ্ছে।

আরও পড়ুন
আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।