পানছড়িতে নদীতে ডুবে এক ছাত্রীর মৃত্যু

খাগড়াছড়ি জেলার পানছড়ি উপজেলার সুতকর্মা পাড়া এলাকায় দুপুরে চেঙ্গী নদীতে পানিতে ডুবে ষষ্ঠ শ্রেণীতে পড়ুয়া বৈশাখী চাকমা ( ১২) নামের এক শিশুর মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।

আজ ২২ জুলাই (শুক্রবার) দুপুর ১২ টার সময় থেকে বাচ্চাটকে খুঁজে না পেয়ে অনেক খোঁজাখুজি
করার পর বেলা সাড়ে ৩ টার সময় পেঁয়াজু পয়েন্ট স্থানে শিশুটির মৃত দেহ উদ্ধার করেন পানছড়ি ফায়ার সার্ভিস ইউনিটের নেতৃবৃন্দ।

বৈশাখী চাকমা একই এলাকার ত্রিদীব চাকমা ও সাবিত্রী চাকমার মেয়ে। পানছড়ি বাজারের সানরাইজ কিন্ডারগার্টেন স্কুলের ৬ষ্ঠ শ্রেণীতে লেখাপড়া করতো বৈশাখী। এ ঘটনায় এলাকায় শোকের পরিবেশ সৃষ্টি হয়েছে।

বৈশাখীর বাবা ত্রিদীব কান্নাজড়িত কন্ঠে জানান, দুপুর ১২টার দিকে আমার মেয়েকে অনেকে চেঙ্গী নদীর উত্তর শান্তিপুর এলাকায় হাঁটু পানিতে খেলা করতে দেখেছে। বেশা দুইটা পর্যন্ত বাড়ি ফিরে না আসলে খোঁজাখুাঁজ শুরু করি। বিকেল সাড়ে তিনটার দিকে নদী থেকে মেয়ের নিথর দেহ উদ্ধার করা হয়।

পানছড়ি থানার ওসি আনছারুল করিম ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে জানিয়েছেন, এলাকাবাসীর সচেতনতার অভাবে প্রতি বর্ষা মৌসুমে অনেকগুলো শিশুর মৃত্যু হচ্ছে। এটি দু:খজনক। তিনি এজন্য এলাকায় সচেতনতা বাড়াতে পদক্ষেপ নেবেন বলে জানান।

আরও পড়ুন
আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।