বঙ্গবন্ধুর ভাষণ আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি লাভ করায় বান্দরবানে আনন্দ শোভাযাত্রা

বঙ্গবন্ধুর ভাষণ আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি লাভ করায় বান্দরবানে আনন্দ শোভাযাত্রা
জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এর ৭ই মার্চের ঐতিহাসিক ভাষণ ইউনেস্কোর “মেমোরি আব দ্য’ ওয়ার্ল্ড ইন্টারন্যাশনাল রেজিস্টার”- এ অন্তর্ভূক্তির মাধ্যমে “ বিশ্ব প্রামাণ্য ঐতিহ্যের ” স্বীকৃতি লাভ উপলক্ষে বান্দরবানের বিভিন্ন উপজেলায় আনন্দ শোভাযাত্রা অনুষ্ঠিত হয়েছে।
শনিবার সকালে বান্দরবান জেলা প্রশাসনের আয়োজনে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের প্রাঙ্গন থেকে এক বর্ণাঢ্য আনন্দ শোভাযাত্রা বের করা হয়। আনন্দ শোভাযাত্রায় জেলার বিভিন্ন সরকারি-বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তা-কর্মচারীরা অংশগ্রহণ করেন । এছাড়াও বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ছাত্র ছাত্রীরা ব্যানার ,প্ল্যাকার্ড ও ফেস্টুন হাতে নিয়ে শোভাযাত্রায় অংশ নেয়। শোভাযাত্রাটি জেলা শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিন করে জেলা প্রশাসকের প্রাঙ্গনের সম্প্রীতির মুক্ত মঞ্চে এসে শেষ হয়।
আনন্দ শোভাযাত্রা শেষে সম্প্রীতির মুক্ত মঞ্চে এক সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও চলচ্চিত্র প্রর্দশনী অনুষ্ঠিত হয়,এতে জেলার বিভিন্ন সংগীত ও নৃত্য শিল্পী অংশ নেয়। অনুষ্টানে জেলা প্রশাসক দিলীপ কুমার বণিক, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক দিদারে আলম মো: মাকসুদ চৌধুরী ,পুলিশ সুপার সঞ্জিত কুমার রায়,পার্বত্য জেলা পরিষদের মুখ্য নির্বাহী কর্মকর্তা মো:শহীদুল আলমসহ জেলার সরকারি বেসরকারি ও বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছাত্র ছাত্রী ও সুশীল সমাজের প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন।

থানচি
বান্দরবানে থানচিতে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতি শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করলেন উপজেলা প্রশাসনসহ বিভিন্ন স্তরে মানুষ। এই উপলক্ষ্যে থানচি উপজেলা প্রশাসন, বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান,এনজিও সংস্থার অংশগ্রহনের মধ্য দিয়ে শনিবার সকাল ১০ টা উপজেলা জনগুরুত্বপূর্ণ স্থানে এক আনন্দ শোভাযাত্রা প্রদক্ষিন করেন। আনন্দ শোভা যাত্রায় অংশ নেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ জাহাঙ্গির আলমসহ প্রশাসনে বিভিন্ন দপ্তরে প্রধানগণ।

বঙ্গবন্ধুর ভাষণ আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি লাভ করায় বান্দরবানের থানচি উপজেলায় আনন্দ শোভাযাত্রা
এ দিকে থানচি সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের উদ্যোগে উচ্চ বিদ্যালয় মিলনায়তনে এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয় । সভায় সভাপতিত্ব করেন সহকারী শিক্ষ মোঃ মনিরুজ্জামান। প্রধান শিক্ষক নূর মোহাম্মদ প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন , সহকারি প্রধান শিক্ষক বিপুল কান্তি বড়ুয়া, সহকারি শিক্ষক মোঃ আবু সাহাদাৎ হোসেন, মোঃ শামশুল হক প্রমূখ।

লামা
জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৭ মার্চের ভাষণ ‘ইউনেস্কোর মেমোরী অব দ্য ওয়ার্ল্ড ইন্টারন্যাশনাল রেজিস্টার’ এ বিশ্বপ্রামাণ্য ঐতিহ্য হিসেবে তালিকাভুক্ত হওয়ায় বান্দরবানের লামা উপজেলায় বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা করেছে উপজেলা প্রশাসন ও বিভিন্ন সরকারী বেসরকারী সংস্থা।

বঙ্গবন্ধুর ভাষণ আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি লাভ করায় বান্দরবানের লামা উপজেলায় আনন্দ শোভাযাত্রা
শনিবার সকালে শোভাযাত্রাটি বের হয়ে শহরের বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে উপজেলা পরিষদ চত্বরে গিয়ে এক সংক্ষিপ্ত আলোচনায় মিলিত হয়। শোভা যাত্রায় উপজেলা প্রশাসন, পৌরসভা, লামা প্রেসক্লাব, থানা, বাংলাদেশ আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনী, আনসার ব্যাটালিয়ন, এলজিইডি, পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তার কার্যালয়, প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর, পৌর শহর ছাত্রলীগ, বাংলাদেশ ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স, আদর্শ বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়, ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসা, সরকারী উচ্চ বিদ্যালয়, একটি বাড়ি একটি খামার প্রকল্প, কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর, এনজেড একতা মহিলা সমিতির কর্মকর্তা কর্মচারীরা স্ব স্ব ব্যানারে স্বতস্ফূর্তভাবে অংশ গ্রহন করে।

রোয়াংছড়ি
জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৭ মার্চের ভাষণ‘ইউনেস্কোর মেমোরী অব দ্য ওয়ার্ল্ড ইন্টারন্যাশনাল রেজিস্টার’ এ বিশ্বপ্রামাণ্য ঐতিহ্য হিসেবে তালিকাভুক্ত হওয়ায় বান্দরবানের রোয়াংছড়ি উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে জাতির পিতার প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করে আনন্দ শোভা যাত্রা আয়োজন করা হয়।

বঙ্গবন্ধুর ভাষণ আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি লাভ করায় বান্দরবানের রোয়াংছড়ি উপজেলায় আনন্দ শোভাযাত্রা
শনিবার সকাল ১০টা উপজেলা পরিষদ চত্বর থেকে শোভা যাত্রাটি শুরু হয়ে প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে ফের একই স্থানে এসে শেষ হয়। উক্ত শোভা যাত্রায় উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ক্যবামং মারমা,উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান হ্লাথোয়াইহ্রী মারমা,নির্বাহী কর্মকর্তা শারমিন আক্তার,রোয়াংছড়ি থানা অফিসার ইনচার্জ মো: ওমর আলী’র (ওসি),পুরুষ ভাইস চেয়ারম্যান ক্যসাইনু মারমা,মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান মাউসাং মারমা,উপজেলা আ’লীগের সভাপতি চহ্লামং মারমাসহ অনেকে অংশগ্রহণ করেন।
আলীকদম
এদিকে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৭ মার্চের ভাষণ‘ইউনেস্কোর মেমোরী অব দ্য ওয়ার্ল্ড ইন্টারন্যাশনাল রেজিস্টার’ এ বিশ্বপ্রামাণ্য ঐতিহ্য হিসেবে তালিকাভুক্ত হওয়ায় একই সময় পাশের আলীকদম উপজেলায়ও যথাযথ মর্যাদায় বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা বের করা হয়। এ শোভা যাত্রায় প্রশাসনসহ বিভিন্ন সরকারী বেসরকারী সংস্থার কর্মকর্তা কর্মচারীরা পৃথক ব্যানারে শোভাযাত্রায় অংশ গ্রহন করে।

আরও পড়ুন
আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।