বান্দরবানে কাঠ কাটার ৪ শ্রমিককে অপহরণ

বান্দরবানের রুমা উপজেলা থেকে চার কাঠ কাটার শ্রমিককে অপহরণ করেছে শসস্ত্র সন্ত্রাসীরা। অপহরণের পর আড়াই লাখ টাকা মুক্তিপণ দাবি করে তারা। আজ শুক্রবার দুপুরের দিকে এই চার শ্রমিককে অপহরণ করা হয় বলে জানা যায়। অপহৃতরা হলেন, বান্দরবান শহরের বালাঘাটা এলাকার মো. নুরুল আলম (৪৮), কক্সবাজার জেলার চকরিয়ার টইটংয়ের মো. জমির হোসেন (৪০), চট্টগ্রামের চন্দনাইশের আহম্মদ কবির (৪৫) ও মো. আরসার আলী (৩৫)। তারা রুমা উপজেলার পান্তলা এলাকার নাইতংপাড়ার কাছে পাহাড়ে বান্দরবান শহরের কাঠ ব্যবসায়ী মো. ইকবালের আওতায় কয়েক দিন ধরে থেকে গাছ কাটছিলেন।
বান্দরবান শহরের কাঠ ব্যবসায়ী মো. ইকবাল বলেন,শুক্রবার দুপুরে শসস্ত্র একটি দল কাঠ কাটার চার শ্রমিককে অপহরণ করে নিয়ে গেছে টাকার জন্য। পরে তারা ফোন করে মুক্তিপণ আড়াই লাখ টাকা দাবি করে।
স্থানীয়রা জানান, দুপুরে অন্তত ১০ জনের একটি সশন্ত্র দল গাছ কাটার স্থানে হানা দিয়ে তাদের অপহরণ করে পাশের পাহাড়ের দিকে নিয়ে যায়, তবে তারা কোন শসস্ত্র গ্রুপের সন্ত্রাসী সেই ব্যাপারে নিশ্চিত কোন তথ্য পাওয়া যায়নি।
এই ব্যাপারে সেনাবাহিনীর রুমা জোনের মেজর তারেক বলেন, আমরা বিষয়টিকে এখনও অপহরণ হিসাবে বলতে পারছিনা, তবে চার শ্রমিক নিখোঁজ আছে। তিনি আরো বলেন, ঘটনাস্থলে সেনা টহলদলকে পাঠানো হয়েছে।
আরো জানা গেছে, এই ঘটনার পর রুমা সেনা জোনের সদস্যরা তাদের উদ্ধারের জন্য অভিযানে নেমেছে, আশেপাশের এলাকাগুলোতে ব্যাপক তল্লাশী চালানো হচ্ছে।
এই ব্যাপারে শুক্রবার রাত পৌনে নয়টায় রুমা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. আবুল হোসেন জানান, অপহরণের বিষয়টি আমরা স্থানীয়দের কাছ থেকে শুনেছি, তবে এখনো আমরা এর সত্যতা নিশ্চিত করতে পারিনি।
প্রসঙ্গত, বান্দরবানের রুমা উপজেলায় দেশি শসস্ত্র দলের পাশাপাশি মিয়ানমারের আরকান আর্মি ও আরকান লিবারেশন পার্টির সদস্যরা সক্রিয় আছে বলে জানা যায়।

আরও পড়ুন

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।