বান্দরবানে পাহাড় কাটায় ১০ লাখ টাকা জরিমানা

বান্দরবান সদর উপজেলার সুয়ালক এলাকায় অবৈধভাবে কাটা হয় এই পাহাড়টি
বান্দরবান সদর উপজেলার সুয়ালক এলাকায় অবৈধভাবে পাহাড় কেটে বোতল ফ্যাক্টরি স্থাপনের অভিযোগে ফিল কোম্পানি লিমিটেডকে ১০ লাখ টাকা জরিমানা করেছে পরিবেশ অধিদফতর।
স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, গত কিছুদিন ধরে জেলার সুয়ালক এলাকায় বড় বড় পাহাড় কেটে সমতল ভূমিতে পরিণত করা হয় বোতল ফ্যাক্টরি নির্মানের জন্য। প্রায় ৫ একরের বেশি জায়গার পাহাড় কেটে সমান করতে ব্যবহার করা হয় তিনটি এস্কেভেট। মাটি সরাতে ব্যবহার করা হয় বেশ কয়েকটি ডাম্পার ট্রাক, পাহাড় কাটার আগে নিধন করা হয় শতাধিক বৃক্ষ। চট্টগ্রামের সাবেক এক বিএনপি নেতার কোম্পানির পরিচালক মো. জসিম উদ্দিন এই পাহাড় কাটেন।
আরো জানা গেছে,বাংলাদেশ পরিবেশ সংরক্ষণ আইন ১৯৯৫ (সংশোধিত ২০১০) এবং বাংলাদেশ ভবন নির্মাণ আইন (১৯৫২) অনুযায়ী কর্তৃপক্ষের অনুমতি ছাড়া কোন পাহাড় কাটা যাবেনা। কিন্তু কর্তৃপক্ষকে না জানিয়ে, পরিবেশ অধিদপ্তরের ছাড়পত্র ছাড়াই বান্দরবানে চলছে পাহাড় কাটা। বিভিন্ন গণমাধ্যমে এই সংক্রান্ত প্রতিবেদন প্রকাশ করা হলে লোক দেখানো অভিযান পরিচালনা করে বলে অভিযোগ স্থানীয়দের।
পরিবেশ অধিদফতর চট্টগ্রাম অঞ্চল সূত্রে জানা গেছে, পরিবেশগত ছাড়পত্র বিহীনভাবে প্রতিষ্ঠান পরিচালনা করে ক্ষতি সাধন করায় বাংলাদেশ পরিবেশ সংরক্ষণ আইন ১৯৯৫-এর ধারা ৭এর আলোকে ওই কোম্পানিকে এই জরিমানা করা হয়। গত মঙ্গলবার পরিবেশ অধিদফতরের চট্টগ্রাম অঞ্চলের কার্যালয়ে তাদের তলব করে এই জরিমানা আদায় করা হয়।
এ বিষয়ে পরিবেশ অধিদফতর চট্টগ্রাম অঞ্চলের উপ পরিচালক মো. ফেরদৌস আনোয়ার বলেন, আমরা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে ঘটনার সত্যতা পাওয়ার কারনে ১০ লাখ টাকা জরিমানা আদায় করেছি।

আরও পড়ুন

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।