বান্দরবানে প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত ২৫০ নারী উদ্যোক্তার মাঝে সনদপত্র বিতরণ

বান্দরবানে নিবন্ধনকৃত মহিলা সমিতি ভিত্তিক ব্যতিক্রমী ব্যবসায়ী উদ্যোগ (জয়িতা-বান্দরবান) কর্মসূচীর আওতায় প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত নারী উদ্যোক্তাদের মাঝে সনদপত্র বিতরণ করা হয়েছে।

আজ শনিবার (২১সেপ্টেম্বর) সকালে বান্দরবান অরুণ সারকী টাউন হলে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত নারী উদ্যোক্তাদের মাঝে এই সনদপত্র বিতরণ করেন মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তরের মহাপরিচালক (অতিরিক্ত সচিব) বদরুন নেছা।

অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক মো.শামীম হোসেন এর সভাপতিত্বে সনদপত্র বিতরণ অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মুহাম্মদ আলী হোসেন,সদর উপজেলা চেয়ারম্যান একে এম জাহাঙ্গীর,মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তরের কর্মসুচী পরিচালক পারভীন সুলতানা, মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তরের বান্দরবানের উপ-পরিচালক অতিয়া চৌধুরী,রুমা উপজেলার মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা সুমল চাকমা, মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তরের বান্দরবানের প্রশিক্ষক কাজল দাশসহ জয়িতা বান্দরবানের বিভিন্ন সমিতির নারী নেত্রীরা।

অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখতে গিয়ে প্রধান অতিথি মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তরের মহাপরিচালক (অতিরিক্ত সচিব) বদরুন নেছা বলেন, আজ নারীরা অনেক দূর এগুচ্ছে। বাংলাদেশের ৬৪টি জেলার মত বান্দরবানের নারীরা পিছিয়ে নেই । বান্দরবানে পুরুষের চেয়ে নারীরা বেশি এগিয়ে রয়েছে, কেননা এখানে ক্ষুদ্র নৃগোষ্টির নারীরা ক্ষেতে খামারে যেইভাবে পরিশ্রম করে সংসার চালান তা শুধু তিন পার্বত্য জেলায় চোখেঁ পড়ে।

এসময় সনদপত্র বিতরণ অনুষ্টানে প্রধান অতিথি মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তরের মহাপরিচালক বদরুন নেছা সকল নারীকে সমাজের পরিবর্তনে এগিয়ে আসার আহবান জানান এবং নিবন্ধনকৃত মহিলা সমিতি ভিত্তিক ব্যতিক্রমী ব্যবসায়ী উদ্যোগ (জয়িতা-বান্দরবান) কর্মসূচীর আওতায় বিভিন্ন প্রশিক্ষণ গ্রহণ করে স্বাবলম্বী হওয়ার আহবান জানান ।

অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখতে গিয়ে অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক মো.শামীম হোসেন বলেন, নারীরা এখন আগের চেয়ে অনেকটাই এগিয়ে যাচ্ছে। এসময় বান্দরবানের নারীরা ঘরের কোণে বসে থাকলে ও আজ বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সরকারের আন্তরিকতা ও সফল উদ্যোগের ফলে নারীরা এগিয়ে যাচ্ছে চাকরী ও বিভিন্ন ব্যবসা বাণিজ্যে।

এসময় তিনি আরো বলেন, সমতলের মত এখন আমাদের পাহাড়ের মেয়েরা এগিয়ে যাচ্ছে সমানতালে। এসময় অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক মো.শামীম হোসেন বান্দরবানের মেঘলায় নির্মাণাধীন জয়িতা ভবণে ব্যবসায় ইচ্ছুক নারী জয়ীতার দোকান বরাদ্ধ সহজলভ্য করা এবং দোকান ভাড়া ৬ মাস ফ্রি ও জামানত ২৫ হাজার টাকার চেয়ে কমিয়ে নারীদের ব্যবসায় প্রসার ঘটাতে অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তরের মহাপরিচালক (অতিরিক্ত সচিব) বদরুন নেছা এর কাছে আবেদন জানান।

অনুষ্ঠানে টেক্সটাইল,নকশীঁ কাথা,এগ্রিকালচার ফুড প্রসেসিং ,ফ্যাশন ডিজাইনসহ বিভিন্ন ট্রেডে প্রশিক্ষণ নেয়া ২৫০ জন নারী উদ্যোক্তাদের মাঝে সনদপত্র বিতরণ করা হয়। অনুষ্ঠানের শেষ পর্যায়ে পরিবেশন করা হয় মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ।

আরও পড়ুন

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।