বান্দরবানে ম্রো সম্প্রদায়ের বর্ষবরণ উৎসব চাংক্রান শুরু

বর্তমান আওয়ামীলীগ সরকার ম্রো সম্প্রদায়ের জীবন মান উন্নয়নে নিরলস ভাবে কাজ করে যাচ্ছে। পার্বত্য এলাকার ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীদের বৈসাবি উৎসবে এখন দেশের সকল সম্প্রদায়ের মানুষেরা একসাথে মিলিত হয়ে পালন করে বলেই বৈসাবি উৎসব সকল সম্প্রদায়ের মিলন মেলায় পরিনত হয়। আজ বুধবার সকাল ১০টায় বান্দরবানের চিম্বুক পাহাড়ের বাগান পাড়ায় পালিত হচ্ছে ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠির ম্রো সম্প্রদায়ের বর্ষবরণ উৎসব চাংক্রানে পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী বীর বাহাদুর উশৈসিং এমপি একথা বলেন।
সকাল থেকে দিনব্যাপী নেঁচে -গেয়ে ম্রোদের ঐতিহ্যবাহী বাঁশীনৃত্য, বাশঁ খেলা, ও দড়ি টানা টানিসহ বিভিন্ন ধরণের খেলাধুলার প্রতিযোগিতার মাধ্যমে উৎসব চলতে থাকে। ম্রো সম্প্রদায়ের তরুণ-তরুনীরা নিজেদের ঐতিহ্যবাহী পোষাক পড়ে অনুষ্ঠানে অংশ নেয়। অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে পার্বত্য প্রতিমন্ত্রী বীর বাহাদুর উশৈসিং এমপি উৎসবটি উদ্বোধন করেন।
এসময় অন্যান্যদের মধ্যে আরো উপস্থিত ছিলেন জেলা প্রশাসক মোঃ আসলাম হোসেন, পুলিশ সুপার মোহাম্মদ জাকির হোসেন মজুমদার, পার্বত্য জেলা পরিষদের সদস্য লক্ষীপদ দাশ, সদস্য থোয়াইহ্লা মং মারমা, সদস্য ফিলিপ ত্রিপুরা, সদস্য সিং ইয়ং ম্রো, তিং তিং ম্যা মারমা, পরিবার পরিকল্পনা বিভাগের উপ-পরিচালক ডাঃ অংচালু ও ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠী ইনিস্টিটিউট -এর পরিচালক মংনুচিং মারমাসহ ম্রো সম্প্রদায়ের নেতৃবৃন্দরা ।
এদিকে আগামীকাল বৃহস্পতিবার থেকে চাকমা এবং তঞ্চঙ্গ্যা সম্প্রদায়ের বর্ষবরণ উৎসব বিজু শুরু হচ্ছে। আর আগামী শুক্রবার থেকে শুরু হবে মারমা সম্প্রদায়ের প্রানের উৎসব মাহা সাংগ্রাই পোয়ে উৎসব।

আরও পড়ুন
আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।