বান্দরবান-চট্টগ্রাম সড়কে ২ ঘন্টা যান চলাচল বন্ধ থাকার পর স্বাভাবিক

মালিক সমিতির সাথে আলোচনা না করে বান্দরবান চট্টগ্রাম সড়কে বিআরটিসি এসি বাস সার্ভিস চালু করার অভিযোগে বান্দরবান- চট্টগ্রাম সড়কে সব ধরণের যান চলাচল বন্ধ করে দেয় শৈলশোভা শ্রমিক ইউনিয়ন ও বান্দরবান পরিবহন মালিক সমিতি। পরে প্রশাসনের সমাধানের আশ্বাসে ২ঘন্টা পর যান চলাচল স্বাভাবিক হয়। আজ মঙ্গলবার (২৯অক্টোবর) ১২টার সময় হঠাৎ যান চলাচল বন্ধ হয়ে যাওয়ায় বিপাকে পড়ে সাধারণ যাত্রীরা।

বান্দরবান পরিবহন মালিক সমিতি ও শৈলশোভা শ্রমিক ইউনিয়নের নেতারা জানান, গতকাল সোমবার (২৮অক্টোবর) সকালে মালিক সমিতির সাথে কোন আলোচনা না করেই উদ্বোধন করা হয় বিআরটিসি। উদ্বোধনের পর বিআরটিসির কর্তৃপক্ষ তাদের দেয়া নির্ধারিত সময়ও মানছে না। আর এ কারণেই বান্দরবান -চট্টগ্রাম সড়কে সকল যান বন্ধ করা হয়। পরে প্রশাসন সমাধানের আশ্বাস দেয়ায় যান চলাচল স্বাভাবিক করা হয়েছে। তবে ২দিনের মধ্যে আলোচনার মাধ্যমে সমাধান করা না হলে আবারো যান চলাচল বন্ধ করা হবে বলে জানান তারা।

সূত্রে জানা যায়,এদিকে আজ দুপুরে বান্দরবান পূর্বাণী কাউন্টারে পরিস্থিতি নিরসনে শৈলশোভা মালিক সমিতির সভাপতি আবদুল কুদ্দুস, ঝুন্টু দাশ,পরিবহণ নেতা টায়ার অমল, জেলা ছাত্র লীগের সাবেক সভাপতি তৌহিদুর রহমান রাশেদ, জেলা যুবলীগের আহবায়ক ক্যালু মং, রাজু বড়ুয়া ও স্থানীয় সাংবাদিকরা উপস্থিত ছিলেন।

আরো জানা গেছে,এসময় ক্ষোধ সাংবাদিকদের উপস্থিতিতে বান্দরবানের পরিবহণ সিন্ডিকেটের গডফাদার নামে পরিচিত টায়ার অমল বিআরটিসি,র কাউন্টারে কর্মরতদের পেটানোর জন্য পরিবহণ শ্রমিকদের নির্দেশ প্রদান করলে শ্রমিকরা উত্তেজিত হয়ে বিআরটিসি কাউন্টারের কর্মীদের মারধর করে।

এ বিষয়ে বান্দরবান শৈলশোভা মালিক সমিতির সভাপতি আবদুল কুদ্দুস চেয়ারম্যান বলেন, বিআরটিসি চালু করায় কোন সমস্যা নাই। আলোচনার মাধ্যমে তাদের দেয়া নির্ধারিত সময়ে গাড়ী ছাড়তে হবে।

আরও পড়ুন

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।