মজুরি বৃদ্ধির চুক্তি বাস্তবায়নের দাবিতে রামগড়ে চা শ্রমিকদের বিক্ষোভ

মজুরি বৃদ্ধির চুক্তি বাস্তবায়নের দাবিতে বাংলাদেশ চা শ্রমিক ইউনিয়নের আহবানে খাগড়াছড়ি জেলার রামগড় চা বাগানের শ্রমিকরা তিন দিনব্যাপী দুই ঘণ্টা কর্মবিরতি পালন করছে। এ সময় মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

সমাবেশে শ্রমিক নেতারা বলেন, দৈনিক মজুরি ১২০ টাকা থেকে বাড়িয়ে ৩০০ টাকা করার দাবিতে গত তিন দিন কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে দুই ঘণ্টা করে কর্মবিরতি পালন করছেন রামগড় উপজেলা লাগোয়া উত্তর ফটিকছড়ির রামগড় চা বাগানের শ্রমিকরা।

গত মঙ্গলবার সকাল ৮টা থেকে সকাল ১০টার এ কর্মসূচি আজ বৃহস্পতিবার পর্যন্ত পালন করেছেন বাগানের শ্রমিকরা।

রামগড় চা-বাগান পঞ্চায়েত কমিটির সভাপতি মদন রাজধরের সভাপতিত্বে মানববন্ধন ও কর্মবিরতি শেষে চা বাগান অফিস প্রাঙ্গনে প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। এর আগে শ্রমিকরা ফেনী-রামগড় সড়কে অবস্থান নিয়ে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ করে প্রতিবাদ জানায়।

সমাবেশ চা-শ্রমিক নেতারা বলেন, জ্বালানি তেলের মূল্য বৃদ্ধির সাথে সাথে নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিস পত্রের দাম বাড়লেও বাড়েনি শ্রমিকদের বেতন। চা-শ্রমিকরা ১২০ টাকা মজুরিতে কাজ করছেন। ২০২১ সালের ডিসেম্বরে শ্রমিকদের সংগঠন বাংলাদেশ চা-শ্রমিক ইউনিয়ন ও বাগান মালিকদের সংগঠন বাংলাদেশ চা সংসদ নেতাদের মধ্যে দ্বিপাক্ষিক চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়। এ সময় শ্রমিকদের মজুরি বাড়িয়ে ৩০০ টাকা করার সিদ্ধান্ত হয়। কিন্তু চুক্তির ১৯ মাস অতিবাহিত হলেও সেই প্রতিশ্রুতির বাস্তবায়ন করেনি মালিকপক্ষ। তাই তারা আন্দোলনে নেমেছেন। তিন দিনের মধ্যে তাদের দাবি না মানা হলে কঠোর কর্মসূচির হুঁশিয়ারি দেন শ্রমিক নেতার।

জানা যায়, ১৯১৭ সালে প্রতিষ্ঠিত প্রায় ১৪০০ একর আয়তনের বাগানের ৮০০ একরের চা প্লান্টেশনে এক হাজার শ্রমিক নিয়মিত কাজ করছে। প্রায় ৮০০টি পরিবারে পাঁচ হাজার সদস্য রয়েছে বাগানটিতে।

সমাবেশে বক্তব্য রাখেন, চা-বাগান পঞ্চায়েত কমিটির সাধরণ সম্পাদক বিপ্লব মুন্ডা চা-বাগান শ্রমিক যুব পরিষদ নেতা জয় চন্দ্র দে, বাগানের সাবেক সাধারণ সম্পাদক মিন্টু চন্দ্র দে,চট্টগ্রাম চা ব্যালির সাধারণ সম্পাদক যতন কর্মকার প্রমুখ।

আরও পড়ুন
আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।