যারা উন্নয়ন দেখে না, তারা কি করে উন্নয়ন করবে : ক্য শৈ হ্লা

বান্দরবানে গণতন্ত্রের বিজয় দিবস উপলক্ষে সমাবেশ
যারা উন্নয়ন দেখে না তারা কি করে উন্নয়ন করবে, শুক্রবার বান্দরবানে গণতন্ত্রের বিজয় দিবস উপলক্ষে সমাবেশে বক্তব্য রাখতে গিয়ে এমন মন্তব্য করেন বান্দরবান জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও পার্বত্য জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ক্য শৈ হ্লা ।
শুক্রবার গণতন্ত্রের বিজয় দিবস উপলক্ষে বান্দরবান শহরের বঙ্গবন্ধু মুক্তমঞ্চে গণতন্ত্রের বিজয় উপলক্ষে এক সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। এসময় তিনি আরো বলেন, বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ সরকার উন্নয়নে বিশ্বাস করে ভোটের রাজনীতিতে নই। বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ সরকারের প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ এগিয়ে যাচ্ছে। বাংলাদেশের প্রতিটা অঞ্চলের সাথে তাল মিলিয়ে আজ পার্বত্য এলাকা উন্নয়নে জোয়ারে ভাসছে। আওয়ামীলীগ সরকার শিক্ষা,চিকিৎসা,যোগাযোগ,প্রযুক্তি,সমুদ্র বিজয় থেকে শুরু করে কোথায় উন্নয়ন হয়নি, সেটা আপনার বলেন ।
এসময় তিনি আরো বলেন, যারা উন্নয়ন কি বুঝেননা তারা ঘর থেকে বেরিয়ে দেখুন বাংলাদেশ আগে কি ছিল, এখন কি হয়েছে। শেখ হাসিনার এই উন্নয়ন কে ধরে রাখতে আগামী নির্বাচনে পুনরায় নৌকা প্রতিকে আপনাদের মূল্যবান ভোটটি প্রদান করার মাধ্যমে বীর বাহাদুর এমপিকে ৬ষ্ট বারের মত জয় যুক্ত করে শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করা আহব্বান করেন।
শুক্রবার গণতন্ত্রের বিজয় দিবস উপলক্ষে বান্দরবান শহরের বঙ্গবন্ধু মুক্তমঞ্চে গণতন্ত্রের বিজয় উপলক্ষে এক সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। জেলা আওয়ামীলীগের সহ সভাপতি আব্দুর রহিম চৌধুরীর সভাপতিত্বে এসময় সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ বান্দরবান জেলার শাখার সভাপতি ও বান্দরবান পার্বত্য জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ক্য শৈ হ্লা।
এসময় অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন,পার্বত্য চট্টগ্রাম আঞ্চলিক পরিষদের সদস্য কাজল কান্তি দাশ,সহ-সভাপতি এ কে এম জাহাঙ্গীর,জেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক ও পৌর মেয়র মোহাম্মদ ইসলাম বেবী, পার্বত্য জেলা পরিষদের সদস্য লক্ষীপদ দাস, মোজাম্মেল হক বাহাদুর,তিং তিং ম্যা, পৌর কাউন্সিলর মো:হাবিবুর রহমান খোকন, অজিত কান্তি দাশ, সৌরভ দাশ শেখর, আবুল কালাম,সালেহা বেগম, জেলা আওয়ামীলীগের উপ প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক আবুল কালাম মুন্না ,পৌর আওয়ামীলীগের সভাপতি অমল কান্তি দাশ,সাধারণ সম্পাদক সামশুল ইসলাম, সাবেক যুব নেতা চৌধুরী প্রকাশ বড়ুয়া,জেলা সেচ্ছাসেবক লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক জহির উদ্দিন চৌধুরী বাবর,জেলা শ্রমিকলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মামুনুর রশীদ মামুন, জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি তৌহিদুর রহমান চৌধুরী রাশেদ, সম্পাদক সুজন চৌধুরৗ সঞ্জয়,জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি কাউছার সোহাগ, সাধারণ সম্পাদক জনি সুশীল,কলেজ ছাত্রলীগের আহবায়ক নাজমুল হোসেন বাবলু ,মো.ইসমাইল, আশরাফ হোসেন আশু, আওয়ামীলীগ,কৃষক লীগ,স্বেচ্ছা সেবকলীগসহ সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা।

আরও পড়ুন
আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।