রাঙামাটিতে স্থানীয়রাই বন্ধ করে দিয়েছে পাহাড়িকা বাস চলাচল !

purabi burmese market

লক্কর ঝক্কর বাস বন্ধ,উন্নত সেবা নাদিয়ে যাত্রীদের জি‌ম্মি করে রাখা, বি‌ভিন্ন হয়রা‌নি থে‌কে মু‌ক্তি ও উন্নত যাত্রী সেবার দাবিতে রাঙ্গামাটি-চট্টগ্রাম রুটে চলাচলরত যাত্রীবাহী পাহাড়িকা বাস চলাচল বন্ধ করে দিয়েছে রাঙ্গামা‌টির স্থানীয় জনগণ।

আজ মঙ্গলবার (৪ ফেব্রুয়ারি) সকাল সাড়ে ১১টার দিকে শহরের রিজার্ভ বাজারস্থ পাহাড়িকা পরিবহনের প্রধান কাউন্টারে তালা লাগিয়ে চট্টগ্রাম অভিমুখে বাস চলাচল বন্ধ করে দেয় তারা। জেলার আবাসিক হোটেল মালিক সমিতি, স্থানীয় পরিবহন মালিকগণ, সকল রাজনৈতিক দলসহ স্থানীয় সুশীল সমাজের নেতাকর্মীরা ঐক্যবদ্ধ ভাবে এই আন্দোলনের সঙ্গে একাত্মতা প্রকাশ করেছেন।

আন্দোলনকারীরা জানান,রাঙ্গামাটির পরিবহন সেক্টরে নৈরাজ্য সৃষ্টি করে রেখেছে চট্টগ্রাম-রাঙ্গামাটি মোটর মালিক সমিতি নামক একটি সংগঠন। চট্টগ্রামের রাউজান উপজেলার সংসদ সদস্যের নাম ভাঙিয়ে বছরের পর বছর ধরে রাঙ্গামাটিবাসীকে জিম্মি করে রাখা হয়েছে।

তারা জানান,রাউজান নির্ভর এই সংগঠনের একক আধিপত্য ও সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডের কারণে রাঙ্গামাটিতে বিলাসবহুল বাস সার্ভিস চালু করতে পারছে না কোম্পানিগুলো। প্রতিটি বাস কোম্পানির কাছ থেকে ৪ লাখ টাকা করে চাঁদাবাজির ঘোষণা দিয়েছে চট্টগ্রাম মোটর মালিক সমিতির নেতারা।

এদিকে অবিলম্বে রাঙ্গামাটি-চট্টগ্রাম সড়কে তথাকথিত মোটর মালিক সমিতির নামে চাঁদাবাজি বন্ধসহ উন্নত যাত্রীসেবা নিশ্চিতে প্রশাসন তথা সরকার যদি পদক্ষেপ না নেয় তাহলে লাগাতার হরতাল-অবরোধের মতো কঠোর কর্মসূচির ডাক দিবে বলেও আন্দোলনকারীরা ঘোষণা দিয়েছেন। এসময় আন্দোলকারী‌দের প‌ক্ষে বক্তব্য রাখেন ব্যবসায়ী সমিতির নেতা আনোয়ার মিয়া,ইমতিয়াজ সিদ্দিকী আসাদ।

dhaka tribune ad2

এদিকে রাঙ্গামাটি থেকে চট্টগ্রাম অভিমুখে চলাচলকারী পাহাড়িকা পরিবহনের বাস সার্ভিস বন্ধ হয়ে যাওয়ায় চরম দুর্ভোগে পড়েছে এই রুটের যাত্রীরা।

আরও পড়ুন
আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।