রামগড়-মাটিরাঙ্গা সীমান্ত সড়ক প্রকল্পে ক্ষতিগ্রস্তদের অর্থ প্রদান

খাগড়াছড়ির রামগড়-মাটিরাঙ্গা সীমান্ত সড়ক নির্মাণ প্রকল্পে ক্ষতিগ্রস্ত ফসলি জমির মালিকদের মাঝে ক্ষতিপূরণের অর্থ প্রদান করা হয়েছে।

আজ রোববার (৭ নভেম্বর) বেলা ১১টার সময় নির্মাণাধীন রামগড়-তানাক্কাপাড়া সীমান্ত সড়কের পিলাক ছড়ায় ক্ষতিগ্রস্ত কৃষকদের মাঝে নগদ অর্থ প্রদান করে বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর ২০ ইঞ্জিনিয়ার কনস্ট্রাকশন ব্যাটালিয়ন (ইসিবি)।

এ সময় বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর ২০ ইসিবি’র অধিনায়ক ও প্রকল্প পরিচালক লে. কর্ণেল আমজাদ হোসেন দিদার, রামগড় ৪৩ বিজিবি’র উপ-অধিনায়ক মেজর মনিরুল হাসান ও ২০ ইসিবি’র প্রকল্প কর্মকর্তা মেজর এস এম খালেদুল ইসলাম সহ পদস্থ কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে ২০ ইসিবি’র অধিনায়ক ও প্রকল্প পরিচালক লে. কর্ণেল আমজাদ হোসেন দিদার স্থানীয়দের সহযোগীতা কামনা করে বলেন, সীমান্ত সড়ক হলে এ অঞ্চলের ব্যবসা বাণিজ্য সম্প্রসারণের পাশাপাশি স্থানীয়দের জীবন মান উন্নত হবে। শিক্ষা, যোগাযোগ, কৃষি বিপননে ব্যাপক পরিবর্তন হবেন এই অঞ্চলে বসবাসকারী জনগোষ্ঠিরা।

সড়কটি নির্মাণে সেনাবাহিনীকে ধন্যবাদ জানিয়ে স্থানীয় কারবারী কাকলি ত্রিপুরা জানান, সড়কটি নির্মাণে দুর্ঘম পাহাগে বসবাসকারীদের জীবনমান উন্নিত হবে। কৃষি ব্যবসাসহ সর্বক্ষেত্রে এগিয়ে যাবে এ সীমান্তবর্তী বাসিন্ধারা। পরে ২৮ জন ক্ষতিগ্রস্থ কৃষকের মাঝে ফসলের ক্ষতি বাবদ ৩ লাখ ৬৫ হাজার ৫০০ টাকা প্রদান করা হয়।

উল্লেখ্য, রামগড় সদর থেকে মাটিরাঙা উপজেলার করইল্যাছড়ি ৫৫ কিলোমিটার দৈর্ঘ্যর সড়কটি নির্মাণ করছে বাংলাদেশ সেনাবাহীনির ২০ ইঞ্জিনিয়ার কনেস্ট্রাকশন ব্যাটালিয়ন এর ৩৪ ইঞ্জিনিয়ার কনেস্ট্রাকশন ব্রিগেড। গত ১১ সেপ্টেম্বর রামগড়ের পিলাকছড়া এলাকায় প্রকল্পটির কর্যক্রম উদ্বোধন করেন প্রকল্পের উপ-সাইট ইনচার্জ ২০ ইসিবির সিনিয়র ওয়ারেন্ট অফিসার মোঃ মমতাজ উদ্দিন আহমেদ।

আরও পড়ুন
আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।