রুমায় শিক্ষার্থীদের উপহারের অর্থ বিতরণ করছে উন্নয়ন সংস্থা আগাপে

পাহাড়বার্তা’য় সংবাদ প্রকাশের পর

বান্দরবানের রুমায় শিক্ষার্থীদের উপহারের অর্থ বিতরণ চলছে। তবে দুর্গম এলাকায় নিজ নিজ বাড়িতে চলে যাওয়ায় শিক্ষার্থিদের উপহারের অর্থ বিতরণ শেষ করতে আগামী বৃহস্পতিবার পর্যন্ত সময় লাগতে পারে বলে সংশ্লিষ্টরা জানিয়েছেন।

গত ২৮ জানুয়ারি পার্বত্য জেলার অন্যতম অনলাইন নিউজ পোর্টাল পাহাড়বার্তা’য় “রুমায় শিশুদের অর্থ নয়ছয়ে উন্নয়ন সংস্থা আগাপে! শিরোনামে সংবাদ প্রকাশিত হয়। এ সংবাদে আগাপে” র সংশ্লিষ্টরা নড়েচড়ে বসেন। বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থা আগাপে’র প্রকল্প ব্যবস্থাপক সুমন ত্রিপুরা বলেন, দাতা সংস্থা কম্পেশন ইন্টারন্যাশনালের অর্থায়নে পরিচালিত পার্বত্য চট্টগ্রাম শিশু উন্নয়ন পকল্পের আওতায় উপকারভোগীদের জন্য অর্থ পাঠিয়ে দেয়। ওই তালিকায় ৮১জন নয়, মোট ছিল১৬৫ জন শিক্ষার্থী। তবে ডলারের দাম উঠানামা সমস্যা করেছিল, তা সমাধান ও অনুমোদন নিতে গিয়ে উপহার টাকা বিতরণ করতে কিছু সময় পিছিয়ে যায়।

২০২১ সালের জানুয়ারি থেকে জুন মাসে পাঠানো টাকা গত রোববার থেকে টাকা বিতরণ শুরু হয়। তবে করোনার কারণে বিদ্যালয় বন্ধ থাকায় উপকারভোগী তালিকাভূক্ত দুর্গম পাহাড়ি এলাকায় বসবাস করা শিক্ষার্থীরা অনেকে চলে গেছে বাড়িতে। তবে সবাইকে খবর দেয়া হয়েছে। তাই আগামী বৃহস্পতিবারের মধ্যে উপহার টাকা বিতরণ কার্যাক্রম শেষ হবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন প্রকল্প ব্যবস্থাপক সুমন ত্রিপুরা।

তিনি বলেন, উপহার হিসেবে শিক্ষার্থী জন্মদিন, পারিবারিক ও সাধারণ উৎসব উপলক্ষে পাঠানো উপহার টাকা ১৬৫ জনের মধ্যে আজ সোমবার (৩১ জানুয়ারি) বিকাল পর্যন্ত একশ জনের বেশি শিক্ষার্থিকে উপহারের টাকা বিতরণ করা হযেছে।
উপকারভোগী শিক্ষার্থী নয়ন ধর পাঁচ হাজার ৭৭৫ টাকা পেয়ে মহা খুশি। তার মতো আরও অনেকে উপহার টাকা পেয়ে সন্তোষ্ট প্রকাশ করেছে। উক্যনু- তিন হাজার ৮৮৫ টাতা, উম্রাপ্রু-এক হাজর ৩১০ টাকা পেয়েছে জন্মদিনের উপহারের টাকা।

আরও পড়ুন
আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।