লামায় কাটা হচ্ছে পাহাড় : পাঁচ ইটভাটা মালিককে ৩ লাখ ৪০ হাজার টাকা জরিমানা

লামায় পাহাড় কাটার বিরুদ্ধে অভিযানে জরিমানা করছেন, নির্বাহী অফিসার নূর-এ-জান্নাত রুমি
বান্দরবানের লামা উপজেলায় অবৈধভাবে ইটভাটা স্থাপনের লক্ষে পাহাড় কেটে মাটি সংগ্রহের দায়ে পাঁচ ইটভাটা মালিককে ৩ লাখ ৪০হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে। উপজেলার ফাইতং ইউনিয়নের পাগলীর বিল ও লম্বাশিয়া এলাকার নির্মাণাধীন ইটভাটা মালিককে এ জরিমানা করা হয়।
উপজেলা নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও নির্বাহী অফিসার নূর-এ-জান্নাত রুমি ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে পৃথক এ জরিমানার আদেশ দেন।
সূত্র জানায়, আসন্ন মৌসুমকে সামনে রেখে উপজেলার ফাইতং ইউনিয়নে ৫’টি ইট ভাটা স্থাপনের জন্য বুল ড্রোজার দিয়ে পাহাড় কেটে মাটি সংগ্রহ করা হচ্ছে; এমন সংবাদের ভিত্তিতে উপজেলা নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট নূর-এ-জান্নাত রুমি আজ বুধবার বিকালে ফাইতং ইউনিয়নের দুর্গম পাহাড়ি পাগলীর বিল এলাকায় ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করেন। এ সময় অবৈধভাবে পাহাড় কাটার দায়ে ইট ভাটা ও প্রস্তুুত নিয়ন্ত্রণ আইন ২০১৩ এর ১৫(১) ধারায় গিয়াস উদ্দিন, ইয়াছির আরাফাত ও আব্দুল করিমকে ৩ লাখ টাকা জরিমানার আদেশ দেন। এর আগে গত সোমবার ইউনিয়নের লম্বাশিয়া এলাকার ইটভাটা মালিক মো. মহি উদ্দিন ও মোক্তার আহমদকেও ৪০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। পাশাপাশি উপস্থিত সংশ্লিষ্ট সকলকে পরিবেশ সংরক্ষণ আইন লঙ্ঘন করে পাহাড় কর্তন সম্পূর্ণরূপে বন্ধ রাখার নির্দেশ প্রদান করেন, নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট নূর-এ-জান্নাত রুমি।
অভিযানে পরিবেশ অধিদপ্তরের কক্সবাজার আঞ্চলিক কার্যালয়ের উপ-পরিচালক, থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আপ্পেলা রাজু নাহা প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। পাহাড় কাটার দায়ে পাঁচ ইটভাটা মালিককে জরিমানা করার সত্যতা নিশ্চিত করে লামা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আপ্পেলা রাজু নাহা বলেন, পাহাড় কাটার বিরুদ্ধে অভিযান অব্যাহত থাকবে।

আরও পড়ুন
আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।