লামায় ১৫ গৃহহীন পরিবার পাচ্ছে প্রধানমন্ত্রীর ‘দুর্যোগ সহনীয় বাসগৃহ’

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা’র বিশেষ প্রকল্প ‘সবার জন্য বাসগৃহ’ এ কর্মসূচীর আওতায় সারাদেশের ন্যায় বান্দরবানের লামা উপজেলায়ও ১৫ গৃহহীন পরিবার পাচ্ছেন ‘দুর্যোগ সহনীয় বাসগৃহ’। সামাজিক নিরাপত্তা বেষ্টনীর আওতায় টিআর কাবিটা কর্মসূচীর বিশেষ খাতের অর্থে গৃহহীন পরিবারের জন্য দুর্যোগ সহনীয় ঘর নির্মাণের উদ্যোগ নেয় দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়। এতে ৩৮ লক্ষ ৭৭ হাজার ৯৬৫ টাকা খরচ হবে বলে সংশ্লিষ্ট সূত্র জানিয়েছে।
প্রকল্প বাস্তবায়ন কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, গ্রামীণ এলাকায় যে সকল দরিদ্র জনগোষ্ঠীর সামান্য জমি বা ভিটা আছে, কিন্তু টেকসই ঘর নেই; তাদেরকে ৮০০ বর্গফুট জায়গায় (২শতাংশ) রান্নাঘর ও টয়লেটসহ একটি সেমিপাকা টিনশেড গৃহ (দুই কক্ষবিশিষ্ট) নির্মাণ করে দেওয়ার উদ্যোগ নেয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এরই ধারাবাহিকতায় লামা উপজেলার ১টি পৌরসভা ও ৭টি ইউনিয়নে প্রথম পর্যায়ে ১৫টি দুর্যোগ সহনীয় বাসগৃহ নির্মাণের উদ্যোগ নেয়া হয়। ইতিমধ্যে ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান কর্তৃক সুপারিশকৃত উপকারভোগীদের তালিকা অনুযায়ী গৃহ নির্মাণের স্থান নির্বাচন ও জমি পরিদর্শনের কাজ সম্পন্ন হয়েছে।
রুপসীপাড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ছাচিং প্রু মার্মা বলেন, আমার ইউনিয়নে প্রাথমিক পর্যায়ে দুইটি গৃহহীন পরিবারকে ‘দুর্যোগ সহনীয় বাসগৃহ’ দেয়ার জন্য নির্বাচন করা হয়েছে।
লামায় ১৫ গৃহহীন পরিবার প্রধানমন্ত্রীর ‘দুর্যোগ সহনীয় বাসগৃহ’ পাওয়ার সত্যতা নিশ্চিত করে উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মো. মজনুর রহমান বলেন, প্রকল্পের প্রাথমিক পর্যায়ের বরাদ্দ পাওয়া সাপেক্ষে প্রকল্পের কাজ শুরু করা হবে। প্রতিটি বাসগৃহ নির্মাণে খরচ হবে ২ লক্ষ ৫৮ হাজার ৫৩১ টাকা।
এ বিষয়ে লামা উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও প্রকল্প বাস্তবায়ন উপজেলা কমিটির সভাপতি নূর-এ-জান্নাত রুমি বলেন, প্রকল্পের প্রাথমিক পর্যায়ের কাজ চলছে। শীঘ্রই ইউনিয়ন ভিত্তিক উপকারভোগীদের তালিকা চূড়ান্তভাবে অনুমোদন করে জেলা কমিটির নিকট প্রেরণ করা হবে।

আরও পড়ুন

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।