লামা সদর ইউনিয়নে নৌকার নির্বাচনী কার্যালয়ে আগুন

বান্দরবানের লামা উপজেলার সদর ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের মনোনিত চেয়ারম্যান প্রার্থী মিন্টু কুমার সেনের নৌকা প্রতীকের একটি নির্বাচনী কার্যালয় পুড়িয়ে দিয়েছে দুর্বৃত্তরা।

বুধবার (১০ নভেম্বর) ভোরে ইউনিয়নের বৈল্লারচর বাজারস্থ নৌকার কার্যালয়ে এ ঘটনা ঘটে। আগামী ১১ নভেম্বর বৃহস্পতিবার এই ইউনিয়নে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। আগুন দেয়ার জন্য প্রতিপক্ষ স্বতন্ত্র প্রার্থী ও তার লোকজনকে দায়ী করছেন আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী মিন্টু কুমার সেন।

তবে অভিযোগ অস্বীকার করে মোটর সাইকেল প্রতিকের স্বতন্ত্র প্রার্থী আক্তার কামাল বলেন, নৌকার কার্যালয়ে আগুন ঘটনায় আমি বা আমার কর্মী-সমর্থকগন কোনভাবেই জড়িত না। জনগণের সহানুভূতি আদায় ও নির্বাচনে ভোট ডাকাতির লক্ষে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী সহ তার লোকজন এমন একটি নাটক সাজিয়েছেন। খবর পেয়ে বুধবার সকালে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে পুলিশ।

স্থানীয়রা জানায়, আগামী ১১ নভেম্বর ইউপি নির্বাচন উপলক্ষে লামা সদর ইউনিয়নের বৈল্লারচর বাজারে নৌকা প্রতীকের নির্বাচনী কার্যালয় তৈরী করে প্রার্থীর কর্মী সমর্থকরা। একপর্যায়ে বুধবার ভোর আনুমানিক ৪টার দিকে কে, বা, কারা নৌকা প্রতীকের নির্বাচনী কার্যালয়ে আগুন ধরিয়ে দেয়। খবর পেয়ে স্থানীয়দের সহায়তায় ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স’র সদস্যরা ঘটনাস্থলে গিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনেন। ততক্ষণে অফিসে থাকা লিপলেট, পোস্টার, চেয়ার, খাট, টেবিল, দলীয় কাগজপত্র, হেন্ড মাইকসহ বিভিন্ন জিনিসপত্র সম্পুর্ণ পুড়ে ছাই হয়ে যায়।

লামা ইউপি নির্বানের নৌকা প্রতীকে চেয়ারম্যান প্রার্থী মিন্টু কুমার সেন ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি মো. জহির উদ্দিন ভোর ৪ টার সময় অফিস পোড়ানোর খবর পেয়ে থানা পুলিশ ও আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীদের ঘটনা অবহিত করেন। এ ব্যাপারে থানায় লিখিত অভিযোগ দেয়ার প্রস্তুতি চলছে বলেও জানান তারা।

এবিষয়ে লামা থানা পুলিশের অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোহাম্মদ মিজানুর রহমান বলেন, ‘ঘটনাস্থল পরিদর্শন করা হয়েছে। ক্ষতিগ্রস্তরা অভিযোগ করলে তদন্ত করে দোষীদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

আরও পড়ুন
আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।