শিক্ষকদের ভুল : মানিকছড়িতে ৩০জন পিএসসি পরীক্ষার্থীর ইবতেদায়ীর প্রশ্নে পরীক্ষা গ্রহণ

পিএসসি ও ইবতেদায়ীর সমাপনী পরীক্ষার প্রথম দিনে অনুষ্ঠিত ইংরেজি পরীক্ষায় মানিকছড়ি কেন্দ্রের একটি কক্ষের ৩০ জন পিএসসি শিক্ষার্থীকে পরীক্ষা দিতে হয়েছে ইবতেদায়ীর প্রশ্নে। ফলে প্রশ্ন কমন না হওয়ায় শিক্ষার্থীদের ভাগ্য নিয়ে দুঃচিন্তায় পড়েছেন অভিভাবকরা।
ক্ষতিগ্রস্ত শিক্ষার্থী,অভিভাবক, সংশ্লিষ্ট স্কুলের শিক্ষকদের সাথে কথা বলে জানা গেছে, মানিকছড়ি উপজেলার ৬টি কেন্দ্রে পিএসসি পরীক্ষার্থীর সংখ্যা ১৮৭৭ জন। এর মধ্যে ছাত্র-৮৪৭ জন এবং ছাত্রী- ১০৩০ জন। অন্যদিকে ইবতেদায়ী ৩টি কেন্দ্রে পরীক্ষার্থীর সংখ্যা ৬৮ জন। এর মধ্যে ছাত্র ৩৮ জন এবং ছাত্রী ৩০জন।
উপজেলা সদরস্থ ‘রাণী নিহার দেবী সরকারী উচ্চ বিদ্যালয়’ পিএসসি কেন্দ্রের ১১২ নং কক্ষের ৩০ জন শিক্ষার্থী যথাক্রমে রাজবাড়ী মডেল সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ১২ জন, দক্ষিণ হাফছড়ি পাড়া শিশু শিক্ষা কেন্দ্রের ১০জন ও মুসলিমপাড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৮ জন শিক্ষার্থীর মাঝে ইবতেদায়ীর ইংরেজি প্রশ্ন বিতরণ করেন পর্যবেক্ষকরা। এতে শিক্ষার্থীরা বিষয়টি বুঝতে পেরে কর্তব্যরত শিক্ষকদের কাছে বললেও শিক্ষকরা বিষয়টি আমলে নেননি। ফলে ইবতেদায়ী প্রশ্নেই পরীক্ষা দিতে হয়েছে ক্ষুদে শিক্ষার্থীদের। পরীক্ষা শেষে ওই কক্ষের ছেলে-মেয়েরা অভিভাকদের কাছে এসে কান্নাকাটি শুরু করলে বিষয়টি জানাজানি হয়। এদিকে খবর পেয়ে উপজেলা শিক্ষা অফিসার (ভারপ্রাপ্ত) শুভাশীষ বড়ুয়া ছুটে আসেন এবং ঘটনা ধামাচাপা দিতে মরিয়া হয়ে উঠেন। এক পর্যায়ে তিনি শিক্ষার্থীদের পাস করিয়ে দেবেন বলে নিশ্চিয়তা দেন।
এ প্রসঙ্গে জানতে চাইলে হল সুপার মো. আকবর আলী ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, ভ‚লবশত এমন ঘটনা ঘটেছে। তবে তিনি দাবি করেন, আধা ঘন্টা পর প্রশ্ন বদলে দেয়া হয়েছে।
এছাড়া কেন্দ্রের দায়িত্বপ্রাপ্ত উপজেলা প্রাণী সম্পদ কর্মকর্তা ডা. মো. মাহমুদুল হাসান বলেন, অসতর্কতার কারণেই এমনটি ঘটেছে।
উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার শুভাশীষ বড়ুয়া ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, আমি রোববার বিকেল ৪টার দিকে খবর পেয়েছি। এখন তো পরীক্ষার্থীরা সবাই শিশু। তাদের স্বার্থে পরীক্ষা তো পেছানো যাবে না।
লক্ষীছড়ির উপজেলা নির্বাহী অফিসার (অতিরিক্ত দায়িত্বে মানিকছড়ি) মো. জাহিদ ইকবাল বলেন, অভিযোগ যেহেতু উঠেছে, সেহেতু প্রকৃত ঘটনা জানতে কেন্দ্র সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা ও শিক্ষকদের চিঠি দিয়েছি। চিঠির জবাব পেলে পরবর্তী পদক্ষেপ নেয়া হবে।

আরও পড়ুন
1 মন্তব্য
  1. Kazal Das বলেছেন

    ওরা না বুঝবে আক্কা বাক্কা,সূর্যকে বলবে গাড়ীর চাক্কা।

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।