সরকার ও এনজিও’র সমন্বিত পদক্ষেপে তৃণমূলের উন্নয়ন ত্বরান্বিত হচ্ছে

গুইমারায় ইউএনও তুষার আহমেদ

যেখানে সরকারি সেবা ও অধিকার পৌঁছানো কষ্টকর; সেখানে বেসরকারি প্রতিষ্ঠানগুলোর ভূমিকা জরুরী। দুর্গমতা, যোগাযোগ অবকাঠামোর কারণে অনেক এলাকায় ইচ্ছে থাকা সত্বেও সরকারি কর্মকর্তারা সরেজমিনে কাজ করতে পারেন না। সেসব এলাকায় যদি সরকারের লাইন ডিপার্টমেন্টের সাথে সমন্বয় করে পদক্ষেপ নেয়া যায়, তাহলে তৃণমূলের উন্নয়ন ত্বরান্বিত হবে।

আজ বুধবার (২৩ ডিসেম্বর) বিকেলে জেলার গুইমারা উপজেলার প্রত্যন্ত থোয়াফ্যামুনি পাড়ায় বেসরকারি প্রতিষ্ঠান ‘আলো’র উদ্যোগে মাঠপর্যায়ে সরকারি কর্মকর্তা ও জনপ্রতিনিধিদের যৌথ সমন্বয় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে ইউএনও তুষার আহমেদ এসব কথা বলেন।

‘আলো’র নির্বাহী পরিচালক অরুণ কান্তি চাকমা’র সভাপতিত্বে পাড়ার মুক্ত প্রাঙ্গণে অনুষ্ঠিত সভায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন উপজেলা প্রাণি সম্পদ কর্মকর্তা ডা. আবু রেজা তালুকদার, উপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা কৃতি বিজয় চাকমা, উপজেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা হাসিনা আকতার এবং ভারপ্রাপ্ত কৃষি কর্মকর্তা সুমন কর।

‘এথনিক পিপলস্ রাইটস এন্ড রেসিলিয়েন্ট লাইভলিহুড (ইপিআরআরএল)’- প্রকল্পের সমন্বয়ক রচয়িতা খীসা সভায় স্বাগড় বক্তব্য রাখেন।

উন্নয়নকর্মী হিতার্থী চাকমা’র সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত সভায় স্থানীয় জনপ্রতিধি, বিভিন্ন শ্রেণী পেশার বাসিন্দারা নিজেদের সমস্যার কথা তুলে ধরলে উপস্থিত সরকারি কর্মকর্তারা সমস্যা সমাধানে সর্বোচ্চ চেষ্টা করার প্রতিশ্রুতি ব্যক্ত করেন।

আরও পড়ুন
আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।