সর্বোচ্চ ভোট পেয়ে মানিকের হ্যাটট্রিক, নবাগত ওমেন

৩য় ধাপে অনুষ্ঠিতব্য খাগড়াছড়ির দীঘিনালার মেরুং ও বোয়ালখালী ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে বাংলাদেশ ত্রিপুরা কল্যান সংসদ দীঘিনালা আঞ্চলিক শাখার সভাপতি ঘনশ্যাম ত্রিপুরা (মানিক) ও সাধারণ সম্পাদক বিবাশ ত্রিপুরা (ওমেন) দু’জনেই সাধারণ সদস্য (মেম্বার) পদে নির্বাচিত হয়েছেন।

উপজেলা নির্বাচন অফিস সূত্র মতে, মেরুং ইউনিয়নের ২ নং ওয়ার্ড থেকে টানা ৩ বারের মতো সাধারণ সদস্য (মেম্বার) পদে নির্বাচন করেছেন ঘনশ্যাম ত্রিপুরা (মানিক)। এ ওয়ার্ডে ৪২৪৪ ভোটের মধ্যে ২৬৪৮ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন তিনি। তার একমাত্র প্রতিদ্বন্দ্বী মো. নাসির উদ্দীন পায় ১০৭১ ভোট।

অপরদিকে বোয়ালখালী ইউনিয়নের ৯ নং ওয়ার্ড থেকে প্রথমবারের মতো সাধারণ সদস্য (মেম্বার) পদে নির্বাচন করেছেন বিবাশ ত্রিপুরা (ওমেন)। এ ওয়ার্ডে তিনি ৭৫৭ ভোটের মধ্যে ২৭৫ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী বসন্ত ত্রিপুরা পায় ২৫৩ ভোট। আরেক নারী প্রার্থী সীমা ত্রিপুরা তার সাথে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে পেয়েছেন ২৪ ভোট।

এ বিষয়ে বাংলাদেশ ত্রিপুরা কল্যান সংসদের কেন্দ্রীয় সভাপতি নলেন্দ্র লাল ত্রিপুরা বলেন, মানবতার সেবায় যারা নিজেদের উৎসর্গ করে তাদেরকে জনগণ ভালবাসবে এটাই স্বাভাবিক। ঘনশ্যাম ত্রিপুরা (মানিক) দীর্ঘদিন যাবৎ জাতি-গোষ্ঠী, ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে তার এলাকার জনগণের সেবা করে যাচ্ছে। এ সেবার ফল হিসেবেই জনগন তাকে বিপুল ভোটের মাধ্যমে হ্যাটট্রিক করিয়েছে। অপরদিকে বিবাশ ত্রিপুরা (ওমেন) প্রথমবারের মতো ইউপি সদস্য পদে নির্বাচিত হয়েছে। আশাকরি দুজনেই কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে মানবতার সেবা করে যাবে৷ দুজনকেই অভিনন্দন জানাচ্ছি।

উপজেলা নির্বাচন অফিসার শাহেনসা মোহাম্মদ লতিফুল খায়ের বলেন, উপজেলার ৩ ইউপির মধ্যে সাধারণ সদস্য (মেম্বার) পদে সবচেয়ে বেশি ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন ঘনশ্যাম ত্রিপুরা (মানিক)। যা দীঘিনালায় এবারের ইউপি নির্বাচনে সাধারণ সদস্য (মেম্বার) পদে সর্বোচ্চ ভোটের রেকর্ড।

আরও পড়ুন
আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।