গরিব ছাত্রদের জন্য তহবিল গঠনের প্রস্তাব ছাত্রলীগের !

143489_173বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের হাতে গড়া বাংলাদেশ ছাত্রলীগ দেশের একটি প্রধান রাজনৈতিক ছাত্র সংগঠন। ক্ষমতাসীন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের শিক্ষা প্রাতিষ্ঠানিক অঙ্গ সংগঠন হিসেবে পরিচিত। বাংলাদেশ ছাত্রলীগের ইতিহাস গৌরব, ঐতিহ্য, সংগ্রাম ও সাফল্যে মণ্ডিত। ১৯৪৮ সাল থেকে শুরু করে বর্তমান পর্যন্ত দেশ ও জনগণের স্বার্থ রক্ষার্থে প্রত্যেকটি আন্দোলনে বাংলাদেশ ছাত্রলীগ প্রধান ভূমিকা রেখেছে।
বাংলাদেশ ছাত্রলীগ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সভাপতি আবিদ আল হাসান বৃহস্পতিবার দুপুরে ফেসবুক ওয়ালে সংগঠনের একটি তহবিল গঠনের প্রস্তাব দেন। গরিব ও মেধাবী শিক্ষার্থী এবং ছাত্রলীগ কর্মীদের চিকিৎসার জন্য এ তহবিলের টাকা ব্যয় করার কথাও বলেন তিনি। ফেসবুকে দেওয়া তার স্ট্যাটাসটি পাঠকদের জন্য হুবুহু তুলে ধরা হলো- বাংলাদেশ ছাত্রলীগ এর একটি অর্থ তহবিল গঠন করা উচিত। যা খরচ হবে শুধু গরিব মেধাবী শিক্ষার্থী ও ছাত্রলীগের নেতাকর্মীদের চিকিৎসায় ।
তহবিল গঠনে অর্থের উৎসঃ

১। বাংলাদেশ ছাত্রলীগের ১২৩টি সাংগঠনিক ইউনিট আছে । প্রতিটি ইউনিটের কাছ থেকে প্রতিমাসে এক হাজার টাকা আদায় করা। ফলে মাসে আদায় হবে এক(১)লাখ ২৩ হাজার টাকা। তাহলে পাঁচ বা দশ বা বিশ বছরে কত টাকা সংগ্রহ হবে ভাবুন।
২। ছাত্রলীগের যারা সাবেক বড় ভাই, চাকরি বা ব্যবসা করেন তাদের কাছ থেকে সহযোগিতা নেওয়া যেতে পারে।
৩। সেচ্ছায় যদি কোনো নেতাকর্মী তহবিলে অর্থ দিতে চান, তা গ্রহণ করা যেতে পারে। কারণ বাংলাদেশ ছাত্রলীগে প্রায় ৮০ লাখ নেতা কর্মী আছে। একবার ভাবুন সব নেতাকর্মী যদি মাসে ১ এক টাকাও দেয় তাহলে মাসে বা বছরে কত টাকা সংগ্রহ হবে।
এই তহবিলের মাধ্যমে দরিদ্র মেধাবী শিক্ষার্থীদের যেমন সহযোগিতা করা যাবে,ঠিক একইভাবে ছাত্রলীগের প্রতিটি নেতাকর্মীর চিকিৎসা ব্যয় করা যাবে। তাহলে আর অর্থের অভাবে কারো লেখাপড়া বন্ধও হবে না আবার কউ বিনা চিকিৎসায় মারা যাবে না। খবর-পূর্বপশ্চিমবিডি.নিউজের

আরও পড়ুন
1 মন্তব্য
  1. Iqbal Hossain বলেছেন

    Good news

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।