পর্যটক বরণে বান্দরবানে বাড়তি নিরাপত্তা

বান্দরবানের থানচি উপজেলার বড়মদক থেকে পরন্ত বিকালের দৃশ্য। ছবি-বাটিং মার্মা।
বান্দরবানের থানচি উপজেলার বড়মদক থেকে পরন্ত বিকালের দৃশ্য। ছবি-বাটিং মার্মা।
ঈদের ৯ দিনের টানা বন্ধে পর্যটকদের বরণে প্রস্তুত বান্দরবান,পর্যটকদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে প্রস্তুতি নিয়েছে প্রশাসন।
এবারও ঈদের লম্বা ছুটিতে যান্ত্রিক জীবনের একটু ক্লান্তি দূর করতে হাজারও মানুষ ছুটে আসবেন প্রাকৃতিক লীলাভূমি বান্দরবানে। প্রতি বছরই ঈদের আগে বান্দরবান শহরে হোটেল-মোটেল আগাম বুকিং থাকে। এ বছরও কোরবানির ঈদের টানা ছুটির সুযোগে হোটেল-মোটেলগুলোতে আশানুরূপ বুকিং দিয়েছেন পর্যটকরা। তাই পর্যটকদের আগমনকে কেন্দ্র করে নিরাপত্তা জোরদার করছে প্রশাসন। জেলার প্রতিটি পর্যটনস্পটে টুরিষ্ট পুলিশের পাশাপাশি নিয়োজিত থাকবে পুলিশ সদস্যরাও।
বান্দরবানে মেঘ আর পাহাড়ের সম্পর্কের কথা, নতুন করে বলার কিছুই নেই। তবুও বলতে হয়, পাহাড়ের সাথে আকাশের সারি সারি মেঘ-ভেলার সর্ম্পকের নতুন মাত্রা এনে দেয় এই ঝুম বরষার সময়। পাহাড়ের বুক চিরে শত শত ঝর্ণা ধারা আপনাকে নিয়ে যাবে যেন কোন অচেনা ও নতুন কোন রাজ্যে।
এছাড়া শহরের কাছের নীলআচল, চিম্বুক, জীবননগর আর নীলগিরির ওপর দাঁড়িয়ে মেঘ স্পর্শ করার ইচ্ছে হলে আপনাকে অবশ্যই ভ্রমণের জন্য বেছে নিতে হবে বান্দরবানকে, তাই পর্যটকরা ছুটি পেলেই যেন ছুটে আসে বান্দরবানে।
বান্দরবান জেলা প্রশাসনের নেজারত ডেপুটি কালেক্টর হোসাইন আল মুজাহিদ জানান, পর্যটক বরণে প্রস্তুত রয়েছে পর্যটন সংস্থা। পর্যটকদের ভ্রমণে পর্যাপ্ত নিরাপত্তা ব্যবস্থা নিশ্চিত করা হয়েছে, তারা যেন কোনো ধরনের হয়রানির শিকার না হয়।

আরও পড়ুন
আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।