পার্বত্য অঞ্চলের স্বাস্থ্য সেবার বাতিঘর চন্দ্রঘোনা খ্রীস্টিয়ান হাসপাতাল

রাঙামাটি জেলা পরিষদ সদস্য অংসুইছাইন চৌধুরী বলেন, পার্বত্য অঞ্চলে স্বাস্থ্য সেবার বাতিঘর হিসাবে শত বছরেও বেশী সময় ধরে কাজ করে আসছেন কাপ্তাইয়ের চন্দ্রঘোনা খ্রীস্টিয়ান হাসপাতাল। এই হাসপাতালে গরীব,দুঃখী সহ নানা শ্রেণী পেশার মানুষ স্বল্পমূল্যে চিকিৎসা সেবা পেয়ে আসছেন। এই হাসপাতালের কমিউনিটি হেলথ প্রোগামের কর্মীরা প্রত্যন্ত অঞ্চলে মানুষকে স্বাস্থ্য সেবা প্রদান সহ স্বাস্থ্য সেবা দিয়ে আসছেন।

বৃহস্পতিবার (১৬ সেপ্টেম্বর ) সকাল ১০ টায় চন্দ্রঘোনা খ্রীষ্টিয়ান হাসপাতালের কম্প্রিহেনসিভ কমিউনিটি হেলথ প্রোগামের আয়োজনে নারী দলের সম্পাদকদের নিয়ে প্রশিক্ষণ কর্মশালায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি একথা বলেন। কাপ্তাইয়ের চন্দ্রঘোনা খ্রীস্টিয়ান হাসপাতালের সামাজিক স্বাস্থ্য সেবা কেন্দ্রে এই প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠিত হয়।

চন্দ্রঘোনা খ্রীস্টিয়ান হাসপাতালের পরিচালক ডাঃ প্রবীর খিয়াং এর সভাপতিত্ব এইসময় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন, কাপ্তাই প্রেস ক্লাব সাধারণ সম্পাদক ঝুলন দত্ত।

কর্মশালায় স্বাগত বক্তব্য রাখেন হাসপাতালের কম্প্রেহেনসিভ কমিউনিটি হেলথ প্রোগামের প্রোগাম ম্যানেজার বিজয় মারমা। উদ্বোধনী অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন সিএইচসি কর্মী মাচাং মারমা।

কর্মশালায় কমিউনিটি হেলথ প্রোগামের নারী দলের সম্পাদক সহ ২৮ জন প্রশিক্ষণার্থী অংশ গ্রহণ করেন।।

আরও পড়ুন
আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।