পার্বত্য চট্টগ্রামের জন্য ৫৬৫ কোটি টাকার নতুন বিদ্যুৎ সংযোগ প্রকল্প : মন্ত্রী বীর বাহাদুর

পার্বত্য তিন জেলা বান্দরবান, রাঙ্গামাটি ও খাগড়াছড়িতে নতুন বিদ্যুত সংযোগের জন্য ৫শত ৬৫ কোটি টাকার প্রকল্প চলমান আছে বলে জানিয়েছে পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী বীর বাহাদুর উশৈসিং এমপি ।

রবিবার পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের উদ্যোগে মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে পার্বত্য চট্টগ্রাম অঞ্চলে জীব বৈচিত্র বন ও পরিবেশ সংরক্ষণ বিষয়ক আন্তঃমন্ত্রণালয় সভায় এ তথ্য জানান মন্ত্রী ।

মন্ত্রী আরো বলেন, পার্বত্য অঞ্চলের স্থানীয় জনগণের চাহিদা ও প্রয়োজনকে প্রাধান্য দিয়ে টেকসই উন্নয়ন পরিকল্পনা গ্রহণ ও বাস্তবায়ন করা হবে। যাতে পার্বত্যবাসীর সামাজিক সেবা নিশ্চিতকরণে স্বাস্থ্য, শিক্ষা, সড়ক ও মহাসড়কসহ অন্যান্য বিষয়ে সমন্বয় সাধন করা হবে।
মতবিনিময় সভায় খাদ্যমন্ত্রী সাধন চন্দ্র মজুমদার, বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজসম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী ডাঃ মোঃ এনামুর রহমান, তথ্য ও প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক, পানি সম্পদ প্রতিমন্ত্রী জাহিদ ফারুক, পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব মোঃ নূরুল আমিন, পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন সচিব আবদুল্লাহ আল মোহসীন চৌধুরী, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ সচিব মোঃ শাহ কামাল, বান্দরবান পার্বত্য জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ক্যশৈহ্লা সহ সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিবগণ উপস্থিত ছিলেন।

দুর্গম এলাকায় আলো পৌঁছে দেয়ার ক্ষেত্রে মন্ত্রী আরো বলেন, ১০ হাজার ৮শ’ পরিবারকে এরই মধ্যে সোলার প্রদান করা হয়েছে এবং আরো ৩০ হাজার পরিবারকে প্রদানের উদ্যোগ নেয়া হয়েছে।

পার্বত্য চট্টগ্রামের টেকসই উন্নয়নের বাস্তবতার কথা তুলে ধরে মন্ত্রী বীর বাহাদুর আরো জানান, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বিগত ১০ বছরে পার্বত্য চট্টগ্রামের ব্যাপক উন্নয়ন সাধিত হলেও দুর্গমতা ও পশ্চাৎপদতার কারণে এ অঞ্চলে শিক্ষা, দারিদ্র্য তথা উন্নয়নের হার কাঙ্খিত মাত্রায় পৌঁছায়নি। তাই পার্বত্য অঞ্চলের জীব বৈচিত্র, বন ও পরিবেশকে অক্ষুণ রেখে সমন্বিত টেকসই উন্নয়ন জরুরি। টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে পার্বত্য বিষয়ক উপাদানগুলো যাতে প্রাধান্য পায় সেদিকে সর্বাধিক গুরুত্বারোপ করতে হবে।

এছাড়াও, বান্দরবান পার্বত্য জেলার থানচি উপজেলাকে একটি উন্নত সমৃদ্ধ তথা মডেল উপজেলা হিসেবে উন্নীতকরণে একটি সমন্বিত প্রকল্প গ্রহণের সিদ্ধান্ত হয়। পর্যায়ক্রমে পার্বত্য অঞ্চলের সব উপজেলায় একইভাবে উন্নয়ন প্রকল্প গ্রহণ করা হবে। উন্নয়নের জন্য মিশন, ভিশন ও একশন প্লান নির্ধারণপূর্বক সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয় ও বিভাগের সাথে সমন¦য় করে প্রকল্প গ্রহণ করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয় সভায়।

আরও পড়ুন

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।