বাঘাইছড়িতে ব্রাশফায়ারে নিহত ১

রাঙ্গামাটির বাঘাইছড়িতে বঙ্গলতলী এলাকায় আঞ্চলিক সশস্ত্র দলের প্রতিপক্ষের ব্রাশফায়ারে জেএসএস সন্তু লারমা দলের নেতা সুরেশ কান্তি(৫৫) ওরফে (দিনেশ) চাকমা নিহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে।

আজ শুক্রবার (১৭ সেপ্টেম্বর) ভোর চার টার দিকে এই ঘটনা ঘটে বলে জানা যায়, ঘটনাস্থল বঙ্গলতলী এলাকাটি বাঘাইছড়ি উপজেলা সদর থেকে প্রায় ১৪ কিলোমিটার উত্তরে।

নিহত সুরেশ কান্তি চাকমা তার নিজের বাড়ী থেকে হাফ কিলোমিটার দুরে বঙ্গলতলী ও উত্তর বঙ্গলতলী সিমান্তবর্তী এলাকার কার্বারী চাকমার বাড়িতে অবস্থান করেন প্রতিপক্ষ খবর পেয়ে ভোর রাতে ব্রাশফায়ার করে লাশ গুম করে এবং হত্যার আলামত নষ্ট করে স্থান ত্যাগ করে।

খবর পেয়ে বাঘাইছড়ি থানা পুলিশ ও সেনাবাহিনী এবং সংবাদ কর্মীরা ঘটনাস্থলে গিয়ে প্রায় আট ঘন্টা অভিযান চালিয়ে লাশ উদ্ধার করতে সক্ষম হয়।

নিহত সুরেশ কান্তি চাকমার অনার্স পরুয়া কন্যা মন্তা চাকমা বলেন,দীর্ঘদীন যাবৎ আমার বাবার সাথে আমাদের কোন যোগাযোগ নাই, তার কৃতকর্মের ফল সে পেয়েছে। পরিবারের পক্ষ থেকে কোন মামলা করা হবে কিনা জানতে চাইলে তিনি বলেন আমারা মামলা করবো না।

জেএসএস সন্তু লারমা দলের বাঘাইছড়ি উপজেলা সাংগঠনিক সম্পাদক ত্রিদিব চাকমা বলেন, সংস্কারের সশস্ত্র সন্ত্রাসীরা নির্মমভাবে ঘুমন্ত সুরেশ চাকমাকে ব্রাশ ফায়ার করে হত্যা করে লাশ গুম করে পালিয়ে যায়।

এদিকে জেএসএস এমএন লারমা (সংস্কার) দলের বাঘাইছড়ি উপজেলা সভাপতি জ্ঞানজীব চাকমা অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, বঙ্গতলীতে আমাদের এমএন লারমা (সংস্কার)দলের কোন লোক নেই তাদের অভ্যন্তরীণ কোন্দলে ঘটনাটি সংঘটিত হয়েছে বলে তিনি দাবী করেন। তিনি আরো বলেন, সামনে ইউপি নির্বাচনকে কেন্দ্র করে একটি পক্ষ পাহাড়কে অস্থিতিশীল করে তুলতে এমন কর্মকান্ড দ্বারা এলাকায় আতংক ছড়ানোর চেষ্টা চালাচ্ছে।

বাঘাইছড়ি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আনোয়ার হোসেন খান বলেন, আমরা খবর পাওয়ার সাথে সাথেই আমার ফোর্স নিয়ে এবং সেনাবাহিনীর সহযোগিতায় ঘটনাস্থলে পৌছায়।এখানকার পাহাড়িরা তথ্য দিয়ে কোন সহযোগিতা করতে চায় না।আমরা ঘটনাস্থলে পৌছায়নোর আগেই লাশ গুম করে সকল আলামত নষ্ট করে চলে যায়। আমরা দীর্ঘ আট ঘন্টা ধরে অভিযান চালিয়ে লাশ উদ্ধারে সর্বোচ্চ চেষ্টা করছি, এলাকাটি অনেক দুর্গম হওয়ায় লাশ খুজে পেতে কষ্ট হয়েছে, তিনি আরো বলেন নিহত সুরেশ কান্তি চাকমা একাদিক হত্যা মামলার পলাতক আসামী ছিলেন।

স্থানীয়দের সুত্রমতে জানাযায় নিহত সুরেশ কান্তি চাকমা বঙ্গলতলী ইউনিয়নের মৃত কান্দ্রা চাকমার সন্তান। সুরেস চাকমার তিন ছেলে দুই মেয়ে । গত সাতদিন আগে তার বড় ছেলের বিয়ে হয়। দীর্ঘদিন ধরে সে জেএসএস রাজনীতির সাথে সম্পৃক্ত ছিল।সে একাদিক হত্যা পলাতক মামলার আসামি ছিল।

আরও পড়ুন
আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।