শিক্ষার অগ্রগতিতে পাহাড়ি-বাঙালি সম্প্রীতি সুদৃঢ় হবে : চেয়ারম্যান কংজরী চৌধুরী

খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি কংজরী চৌধুরী বলেছেন, শিক্ষার অগ্রগতিতে পাহাড়ি-বাঙালি সম্প্রীতি সুদৃঢ় হবে। জাতির জনক বঙ্গবন্ধু’র পথ অনুসরণ করে ১৯৯৬ সালে একুশ বছর পর ক্ষমতায় এসেই পাহাড়ের সব সম্প্রদায়ের উন্নয়ন-সমৃদ্ধির জন্য দৃঢ়তা দেখিয়েছেন। নবম জাতীয় সংসদ নির্বাচনের পর থেকে এই এক দশকে তিন পার্বত্য জেলার শিক্ষাক্ষেত্রে বৈপ।রবিক পরিবর্তন সাধন করেছেন। তাই পার্বত্যবাসীর উচিত দেশরত্ন শেখ হাসিনা’র রাজনৈতিক দর্শনকে অনুসরণ করা।
তিনি সোমবার দুপুরে খাগড়াছড়ির গুইমারা উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে উপজেলা সমাজ সেবা কার্যালয়ের উদ্যোগে পাহাড়ি-বাঙালি দরিদ্র পরিবার ও কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যায়নরত শিক্ষার্থীদের মাঝে অনুদান বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।
এসময় অন্যান্য বক্তারা বলেন, পাহাড়ের পিছিয়ে পড়া ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীদের জীবন মানোন্নয়নে সরকার আন্তরিক। তারই প্রেক্ষিতে ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর পরিবার ও শিক্ষার্থীদের মাঝে সরকারিভাবে অনুদান বিতরণ করা হয়। তাঁদের পাশাপাশি পাহাড়ে বসবাসরত দরিদ্র বাঙালি পরিবারদের মাঝেও এই অনুদান বিতরণ করে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বজায় রাখতে সংশ্লিষ্টদের প্রতি আহবানও জানান বক্তারা।
গুইমারা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বিভীষণ কান্তি দাশ’র সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মাঝে উপজেলা চেয়ারম্যান উশ্যেপ্রু মারমা, জেলা সমাজ সেবা কার্যালয়ের উপ-পরিচালক মনিরুল ইসলাম, গুইমারা সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ মোহাম্মদ নাজিম উদ্দিন, গুইমারা ইউপি চেয়ারম্যান মেমং মারমা, হাফছড়ি ইউপি চেয়ারম্যান চাইথোয়াই চৌধুরী সহ ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর সদস্য, পরিবার, কলেজ/ বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যয়ণরত শিক্ষার্থ উপস্থিত ছিলেন।
পরে বাংলাদেশ জাতীয় সমাজ সেবা অধিদপ্তর হতে প্রায় দেড় শতাধিক পরিবার ও ছাত্রপ্রতি প্রতি ৪ হাজার টাকা ও কলেজ-বিশ^বিদ্যালয়ের অধ্যায়নরত শিক্ষার্থীদের শিক্ষার উন্নয়নে ৪ হাজার টাকা অুনদান তুলে দেন অতিথিরা।

আরও পড়ুন
Loading...