সারার স্বপ্নের ব্যাংক যখন ডি‌সির হাতে

ছোট শিশু সারা জামাল। বয়সও বা কত? সবে তো নার্সারী পেরিয়ে কেজিতে। নিছক খেলা বা কৌতুহল বশতঃ ভ‌বিষ্যতের কথা ভেবে বাবাকে দিয়ে কিনে আনিয়েছে ব্যাংক। সে ব্যাংকে প্র‌তি‌দিন টাকা জমানোও শুরু করে। নামও দিয়েছে, “স্বপ্নের ব্যাংক” ।

এরইমধ্যে করোনা ভাইরাস ভর করছে দেশের মানুষের ওপর। ঘর ব‌ন্দি হয়ে পড়ে সবধরণের মানুষ। সরকার এসব ঘরব‌ন্দি মানুষের খাবারের ব্যবস্থা করতে যখন ব্যস্ত, ঠিক তখনই এ‌গি‌য়ে এল ছোট শিশু সারা। মানবতাকে বাঁচাতে সারা তার স্ব‌প্নের ব্যাংক রাঙামা‌টি ডি‌সির হাতে তুলে দিয়ে সৃ‌ষ্টি করলেন এক অনন্য দৃষ্টান্ত।

আজ বৃহস্পতিবার (০২এপ্রিল) সকালে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে গিয়ে জেলা প্রশাসক এ কে এম মামুনুর রশিদের কাছে নিজের হাতে তুলে দেন স্ব‌প্নের ব্যাংকের জমানো অর্থ।

সারা জামাল রাঙামাটির পৌরসভার প্যানেল মেয়র ও ৭নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর জামাল উদ্দিনের মেয়ে এবং সে রাঙামাটি লেকার্স পাবলিক স্কুল এন্ড কলেজের ছাত্রী। এসময় সারার চাচা সমাজ সেবক কামাল উদ্দিন উপস্থিত ছিলেন।

আরও পড়ুন

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।