খাগড়াছড়িতে অপহৃত বাঙালী যুবকদের মুক্তির দাবিতে সকাল সন্ধ্যা হরতাল পালন

খাগড়াছড়ি জেলার মহালছড়ির মাইসছড়ি থেকে অপহৃত তিন বাঙালী যুবকের মুক্তির দাবিতে পার্বত্য বাঙালী ছাত্র পরিষদের ডাকা সকাল সন্ধ্যা হরতাল পালন করা হয়েছে। ভোর থেকে খাগড়াছড়ি সদর ও মাটিরাঙা উপজেলার বিভিন্ন স্থানে হরতাল সমর্থকরা সড়কে অবস্থান নিয়ে পিকেটিং করে।
খাগড়াছড়ি সদরের উপজেলা এলাকায় একটি ব্যাটারী চালিত অটোরিক্সা ভাংচুর করেছে পিকেটাররা। সকালে খাগড়াছড়ি শহরের হরতালের সমর্থনে মিছিল করে বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে পার্বত্য বাঙালী ছাত্র পরিষদের নেতা কর্মীরা। এসময় সড়কের উপর টায়ার জ¦ালানোর চেষ্টাকালে পুলিশ তাদের ছত্রভঙ্গ করে দেয়। দূরপাল্লার যানবাহন চলাচল বন্ধ থাকায় দূর্ভোগে পড়ে যাত্রীরা। শহরের অধিকাংশ ব্যবসা প্রতিষ্ঠান বন্ধ ছিলো।
খাগড়াছড়ি সদর থানার ওসি সাহাদাত হোসেন টিটো জানান, পরিস্থিতি আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর নিয়ন্ত্রণে রয়েছে। ঢাকা থেকে ছেড়ে আসা নৈশকোচ গুলো পুলিশ পাহারায় শহরে প্রবেশ করেছে।
প্রসঙ্গত, গত ১৬ এপ্রিল খাগড়াছড়ির জেলার মহালছড়ির মাইসছড়ি এলাকায় কাঠ কিনতে গিয়ে অপহৃত হন মাটিরাঙা উপজেলার পিকআপ ভ্যান চালক বাহার মিয়া, কাঠ ব্যবসায়ী সালাহ উদ্দিন ও মহরম আলী। পরিবারের দাবি মুক্তিপণের টাকা দেয়ার পরও তাদের ছেড়ে দিচ্ছে না অপহরণকারীরা। অপহৃতদের মুক্তির দাবিতে গত শুক্রবার সংবাদ সম্মেলন করে সকাল সন্ধ্যা হরতালের দেয় দেয় পার্বত্য বাঙালী ছাত্র পরিষদ।

আরও পড়ুন
আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।