বেতন বোনাস নেই তাদের : ভোগান্তি লামার রোগীদের

লামা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স
তিন মাসের বেতন ও বোনাস না পাওয়ায় বান্দরবানের লামা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে কর্মবিরতি পালন করছে কর্মরত সেবিকারা। গত মঙ্গল ও বুধবার এই দুই দিনের আধাবেলা কর্মবিরতিতে ভোগান্তিতে পড়ে আন্ত:বিভাগে ভর্তিকৃত রোগীরা।
সূত্র জানায়,জেলার লামা উপজেলার ৫০ শয্যা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ১৪জন সেবিকা কর্মরত আছেন। প্রতিদিন এ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে দুর্গম পাহাড়ি এলাকার প্রায় অর্ধশতাধিক রোগী ভর্তি থাকে। গত এপ্রিল থেকে জুন মাস পর্যন্ত তিন মাসের বেতন আটকা পড়ে। স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে কর্তৃপক্ষ তাদের বেতন ভাতার চাহিদা পত্র পাঠালেও সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয় থেকে বেতন ছাড় করেনি। বিধায় বেতন ও বোনাসের দাবীতে তারা কর্মবিরতি পালন শুরু করে।
সরজমিন পরিদর্শনে গেলে আন্ত:বিভাগে ভর্তিকৃত রোগী জোবাইরা আক্তারসহ অনেকে বলেন, সেবিকারা কর্মবিরতি পালন করায় চরম ভোগান্তি পোহাতে হচ্ছে।
লামা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের সেবিকা বিথিকা তালুকদার, মর্জিনা বেগমসহ অন্যরা জানায়, সামনে পবিত্র ঈদ, আমরা তিন মাস যাবৎ বেতন পাচ্ছি না, পরিবার-পরিজন নিয়ে কষ্টে আছি। বিষয়টি একাধিকবার কর্তৃপক্ষকে জানালেও তারা গুরুত্ব দেয়নি। তাই বাধ্য হয়ে আমরা কর্মবিরতি পালন করছি।
লামা উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. উইলিয়াম লুসাই বলেন, আমরা বিল করে পাঠিয়েছি, হিসাব রক্ষণ কার্যালয়ের জটিলতার কারণে বেতন বোনাস পেতে দেরি হচ্ছে।
বান্দরবান সিভিল সার্জন ডা. উদয় শংকর চাকমা জানান, আপাতত একমাসের বেতন ও বোনাস দেয়া হবে, সবাইকে কর্মবিরতি প্রত্যাহার করে কাজে যোগদানের জন্য বলা হয়েছে।

আরও পড়ুন
আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।