লামায় ১ লক্ষ ৪০হাজার লিটার চোলাই মদ ও উপকরণ জব্দ

লামায় জব্দকৃত মদ. উপকরণসহ নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও র‌্যাব সদস্যরা
বান্দরবানের লামা উপজেলার মাত্র চার মাসের ব্যবধানে ফের একটি ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠি পাড়া থেকে ১ লক্ষ ৪০ হাজার লিটার দেশিয় তৈরি চোলাই মদ ও মদ তৈরির উপকরণ জব্দ করেছে র‌্যাব।
উপজেলার আজিজনগর ইউনিয়নের চাম্বি মফিজ বাজার সংলগ্ন হেডম্যান পাড়ায় বৃহস্পতিবার সকাল থেকে বিকাল পর্যন্ত অভিযান চালিয়ে এসব জব্দ করা হয়। বান্দরবানের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. আজিজুর রহমান এ অভিযানের নেতৃত্ব দেন। এ সময় অবৈধভাবে মদ তৈরি ও বিক্রির দায়ে হেডম্যান পাড়ার বাসিন্দা থোয়াইহ্লাচিং মার্মার ছেলে বাবু মার্মাকে (১৯) তাৎক্ষনিকভাবে ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে ২ হাজার টাকা জরিমানা এবং মৃত মংমং মার্মার ছেলে মং মার্মাকে (৩০) আটক করা হয়। জব্দকৃত মদ ও উপকরণের মূল্য প্রায় ৪ কোটি ৩৪ লক্ষ টাকা বলে জানিয়েছেন সংশ্লিষ্টরা।
স্থানীয় সূত্র জানায়, আজিজনগর বাজার সংলগ্ন হেডম্যান পাড়ায় বাণিজ্যিক উদ্দেশ্যে বিপুল পরিমান দেশীয় চোলাই মদ তৈরি ও পাচারের জন্য মজুত করা হয়েছে; এমন সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাব-৭ এর কক্সবাজার সদস্যরা বান্দরবান জেলা নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট মো. আজিজুর রহমানের নেতৃত্বে বৃহস্পতিবার সকাল ১০টা থেকে বিকাল সাড়ে ৩টা পর্যন্ত একটানা অভিযান চালায়। এ সময় পাড়ার ৫০টি বসতঘর থেকে বাণিজ্যিকভাবে তৈরিকৃত ১ লক্ষ ৫ হাজার লিটার দেশীয় তৈরি মদ ও ৩৫ হাজার কেজি মদ তৈরির উপকরণ জব্দ করেন। পাশাপাশি অবৈধভাবে মদ তৈরি ও বিক্রির সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে ২জনকে আটক করে র‌্যাব। পরে জব্দকৃত চোলাই মদ ও মদ তৈরির উপকরণ সমুহ প্রকাশ্যে ধ্বংস করা হয়। প্রসঙ্গত, গত ২৮ ফেব্রুয়ারি তারিখে একই পাড়ায় একজন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের নেতৃত্বে অভিযান চালিয়ে প্রায় ৩ হাজার লিটার চোলাই মদ ও মদ তৈরির উপকরণ জব্দ করে র‌্যাব।
বান্দরবান জেলার নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. আজিজুর রহমান এক লক্ষ চল্লিশ হাজার লিটার চোলাই মদ ও মদ উপকরণ জব্দসহ ২জনকে আটকের সত্যতা নিশ্চিত করেন।

আরও পড়ুন
আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।