বেশি দামে পণ্য বিক্রি করে বান্দরবান শহরের স্বপ্নচূড়া সুপার সপ !

বান্দরবান শহরের বাজারের স্বপ্নচূড়া সুপার সপের বিরুদ্ধে বেশি দামে নিত্য পণ্য বিক্রির অভিযোগ উঠেছে। আর কম দামে পণ্য বিক্রি করার কারনে এই সুপার সপের মালিক কর্তৃক এক ক্ষুদ্র পেঁয়াজ ব্যবসায়িকে প্রকাশ্যে মারধর ও পেঁয়াজ ও পণ্য মাপার মিটার ছিনিয়ে নেওয়ার অভিযোগ উঠেছে।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, আজ মঙ্গলবার সকালে (১৭মার্চ) জেলা শহরের বাজার মসজিদের সামনে ভ্যানে করে প্রতি কেজি ইন্ডিয়ান পেঁয়াজ ৬০ টাকা দামে বিক্রি করছিলেন ক্ষুদ্র ব্যবসায়ি মো: এরশাদ। এসময় স্বপ্ন সুপার সপের মালিক পিন্টু দাশ এত কমদামে (৬০ টাকা প্রতি কেজি) পেঁয়াজ বিক্রি না করার জন্য এই ক্ষুদ্র ব্যবসায়িকে শাসান। এসময় গ্রাহকরা কম দামে এই পেঁয়াজ কিনতে চাইলে পিন্টু দাশ বাধা দেন এবং তারা পেঁয়াজ ও মাপার মিটার নিয়ে যান। এসময় পেঁয়াজ ব্যবসায়ি এরশাদকে কয়েকটি চড় থাপ্পর দেন।

এই ব্যাপারে পেঁয়াজ ব্যবসায়ি এরশাদ পাহাড়বার্তা’কে বলেন, আমি চট্টগ্রাম থেকে ৫১ টাকা কেজিতে পেঁয়াজ এনে ৯ টাকা লাভে কম দামে ৬০টাকা কেজি পেঁয়াজ বিক্রি করছি, তাই আমাকে মারধর করে স্বপ্নচূড়া সুপার সপের পিন্টু।

আরো জানা গেছে, উক্ত এলাকায় ডিউটিরত পুলিশ সদস্যরা ঘটনার পর দুইজনকেই থানায় নিয়ে আসলে বান্দরবানে মুদি ব্যবসায়ি সিন্ডিকেটের নেতারা তৎপর হয়ে উঠে ব্যবসায়ি পিন্টুকে থানা থেকে ছাড়িয়ে আনতে এবং ব্যবসায়িরা তাদের পণ্য বিক্রির তালিকায় পেঁয়াজ প্রতিকেজি ৮০ টাকা দরে বিক্রি করার কথা থাকলে ঘটনার পর দ্রুত তা বদলিয়ে পেঁয়াজের কেজি ৫৫টাকা করেন বলে জানা যায়। শুধু পেঁয়াজ নয়, স্বপ্ন সুপার সপে চাল,ডাল, তেল, মসলা পন্যসহ বান্দরবান শহরের অন্য মুদি দোকান থেকে বেশি মূল্যে যেকোন পণ্য বিক্রি হয় বলে জানা যায়।

বান্দরবান সদর থানায় স্বপ্নচূড়া সুপার সপের মালিক পিন্টু দাশ বলেন,আমি এরশাদকে মেরে ভুল করেছি,তার জন্য তার কাছ থেকে ক্ষমা চেয়েছি।

এদিকে বান্দরবানের ব্যবসায়িদের বিভিন্ন ধরণের সিন্ডিকেটের কাছে অসহায় হয়ে পড়েছে স্থানীয়রা। সিন্ডিকেটগুলো বছরে একবার জমকালো অনুষ্ঠান করে কিছু গরীব অসহায় মানুষকে শাড়ী ও কম্বল বিতরণ করে। আর এর বিপরীতে প্রশাসনকে ম্যানেজ করে রেস্টুরেন্ট, মুদি ও ওষুধ ব্যবসায়িরা তাদের সিন্ডিকেটের মাধ্যমে একের পর এক তাদের প্রতিষ্ঠানের পণ্যের দাম বাড়ানোর কারনে সমালোচনা মানুষের মুখে মুখে।

এই ব্যাপারে বান্দরবানের বাজার এলাকার বাসিন্দা ইরফান উদ্দিন পাহাড়বার্তা’কে বলেন,বান্দরবান মুদি ব্যবসায়িরা সিন্ডিকেট করে নিত্য পণ্যের যে দাম একবার বাড়ান, সেই দাম বিভিন্ন জেলায় কমলেও বান্দরবানে আর কমেনা।

প্রসঙ্গত,বান্দরবান মুদি দোকান ব্যবসায়ি সমিতির ক্ষমতার দাপটে স্বপ্ন চূড়া সুপার সপের মালিক পিন্টু দাশ এর আগের ইলেক্ট্রিক ম্যাকানিক নিন্টু চক্রবর্তীসহ বেশ কয়েকজনকে মারধর করেন বলে অভিযোগ রয়েছে।

এই ব্যাপারে বান্দরবান সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা শহিদুল ইসলাম চৌধুরী বলেন, ব্যবসায়িরা সন্ধ্যার মধ্যে বিষয়টির সমাধান করতে না পারলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

আরও পড়ুন
1 মন্তব্য
  1. Suman বলেছেন

    মিন্টু দাশ ব্যাটার হাত, পা গুরিয়ে দেওয়া দরকার ছিল। এই সংবাদটি দেখার পর অন্তত আমি স্বপ্নচূড়া সুপার সপ হতে মালামাল কেলা বন্ধ করলাম।

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।