নাইক্ষ্যংছড়ি যুবলীগের নেতৃত্বে আসছে কারা ?

নাইক্ষ্যংছড়ি যুবলীগের সম্মেলন সম্ভব্য প্রার্থিরা
বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলা যুবলীগের সম্মেলন আগামী ৩১ মার্চ এর মধ্যে সম্পন্ন করার নির্দেশ দিয়েছে বান্দরবান জেলা যুবলীগ। এই নির্দেশনার পর মাঠ পর্যায়ের নেতাকর্মীরা সম্মেলনে যুবলীগের উপজেলা সভাপতি ও সাধারন সম্পাদক প্রার্থীদের পক্ষে প্রচারনা চালাচ্ছে।
দলীয় সুত্র জানিয়েছে, সর্বশেষ ২০১৩ সালে উপজেলা যুবলীগেরর ত্রি বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্টিত হয় সম্মেলনে সভাপতি জসিম উদ্দিন ও সাধারন সম্পাদক হোসাইন আহাম্মদ নির্বাচিত হন। জেলার নির্দেশনা পাওয়ার পর সম্ভব্য প্রার্থির অনেকটা নিরবে নেতাকর্মীদের দ্বারস্থ হচ্ছেন দোয়া কামনা করে।
সম্মেলনের বিষয়ে নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলা যুবলীগ সভাপতি মোঃ জসিম উদ্দিন বলেন, আগামী ২২ মার্চ উপজেলা যুবলীগ এর কার্যনির্বাহী কমিটির সভা অনুষ্টিত হবে, উক্ত সভায় জেলার নির্দেশিত সময়ের মধ্যে সম্মেলন সম্পন্ন করার তারিখ নির্ধারন হবে। নেতাকর্মীদের মুখে প্রার্থী হিসেবে যাদের নাম এসেছে তাদের মধ্যে সভাপতি পদে বর্তমান সভাপতি মোঃ জসিম উদ্দিনের নাম শুনা যাচ্ছে।
যুবলীগ সিনিয়র সহ সভাপতি নাজমুল হাসান জানান, বর্তমান সভাপতি জসিম উদ্দিন সর্বজন গ্রহনযোগ্য ক্লিন ইমেজের নেতা, তিনি যদি পুনরায় সভাপতি প্রার্থী হিসেবে না দাঁড়ান তবে আমি ত্যাগী হিসেবে সভাপতি প্রার্থীতা করব।
অপরদিকে উপজেলা যুবলীগ বর্তমান সাধারন সম্পাদক হোসাইন আহাম্মদ বলেন, যুবলীগে কোন কোন্দল নাই, এরি মধ্যে আমরা তিন ইউনিয়নে অপূর্ণাঙ্গ কমিটি করেছি এবং দৌছড়ি ও সোনাইছড়ি ইউনিয়নে আহ্বায়ক কমিটি দেয়া আছে। কাউন্সিলররা নির্ধারন করবেন আগামী কমিটিতে কারা আসবে,তবে বর্তমান সভাপতি থাকা না থাকার উপরে নির্ধারন করে সভাপতি অথবা সাধারন সম্পাদক প্রার্থী হবেন বলে জানান।
অপরদিকে মাঠ পর্যায়ের নতুন নেতৃত্ব সৃষ্টির দাবী নিয়ে নাইক্ষ্যংছড়ি সদর ইউনিয়ন যুবলীগ সাধারন সম্পাদক ফাহিম ইকবাল চৌধুরী ও উপজেলা যুবলীগ যুগ্ম সম্পাদক আলী হোসেন (ইউপি সদস্য) সাধারন সম্পাদক প্রার্থী হিসেবে ওয়ার্ড পর্যায়ে কর্মিদের নিকট গনসংযোগ করছেন বলে জানিয়েছেন।
আগামী সম্মেলন এর বিষয়ে বাইশারী যুবলীগের নব গঠিত কমিটি র সভাপতি আবুল কালাম জানিয়েছেন, সম্মেলনের ফলে যুবলীগ আরো শক্তিশালী হবে, আমাদের মধ্যে কোন দন্ধ নেই বর্তমান সভাপতি জসিম উদ্দিন উপজেলা পর্যায়ে গ্রহনযোগ্য ব্যক্তি, বর্তমান সময়ে বিভিন্ন জন নানা বিষয়ে সমালোচিত হলেও তিনি যুবলীগকে সমালোচনার উর্দ্ধে রেখেছেন।
ঘুমধুম ইউনিয়ন যুবলীগ সভাপতি প্যানেল চেয়ারম্যান মোঃ কামাল বলেন, আমাদের প্রতিটি ওয়ার্ড কমিটি রয়েছে, ক্ষমতায় এসে ত্যাগি নেতাকর্মীরা পদ পদবী হারালে আগামী নির্বাচনে প্রভাব পড়তে পারে।
সদর ইউনিয়নে যুবলীগ এর ৭ নং ওয়ার্ড সভাপতি মোঃ হাসান বলেন, ৫টি প্রতিটা ইউনিয়নের মধ্যে সব ছেয়ে সফল সদর ইউনিয়ন কমিটি, আমরা নতুন নেতৃত্ব চাই তাই ইউনিয়ন কমিটির সাধারন সম্পাদক ফাহিম ইকবালকে উপজেলা সাধারন সম্পাদক পদে প্রার্থী হিসেবে আমরা ঘোষনা দিয়েছি।
আওয়ামীলীগ সদস্য সচিব ইমরান মেম্বার বলেন, সকলের প্রত্যাশা অনুসারে অতীতের সুনাম ধরে রাখতে যথা সময়ে শান্তিপূর্ণ সম্মেলন অনুষ্টিত হোক।
তবে উপজেলা আওয়ামীলীগ এর সিনিয়র এক নেতা জানিয়েছেন, উপজেলা যুবলীগের নেতৃত্ব নির্বাচনের উপর নির্ভর করবে আসন্ন মে মাসে উপজেলা আওয়ামীলীগ এর কমিটির সম্মেলনে নেতৃত্ব বাছাই, তাই সবার কৌতুহল এর শেষ নেই।

আরও পড়ুন
আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।