নাক ডাকা বন্ধের ৭ উপায়

picঘুমের মধ্যে প্রচণ্ড শব্দে নাক ডাকা একটি বিব্রতকর সমস্যা সন্দেহ নেই। আশেপাশের মানুষগুলো জন্য এটি যথেষ্ট বিরক্তির কারণ। ঠাণ্ডা লেগে নাক বন্ধ হয়ে যাওয়া, শোয়ার সমস্যাসহ নানান কারণে মানুষ নাক ডাকে। রিডার’স ডাইজেস্ট জানিয়েছে নাক ডাকা সমস্যার সহজ কিছু সমাধান। তবে অনেক সময় বড় ধরনের শারীরিক সমস্যার কারণেও মানুষ নাক ডাকতে পারে। তাই নাক ডাকা না কমলে দ্রুত ডাক্তারের পরামর্শ নেওয়া উচিত।
জেনে নিন নাক ডাকার সমস্যা থেকে মুক্তি পাওয়ার কিছু কৌশল সম্পর্কে
১-চিত হয়ে শোয়ার কারণে নাক ডাকার সমস্যা হয় বেশিরভাগ কারণে। কারণ পেছনের অংশে চাপ পড়ে শ্বাসনালীর পেশি সংকুচিত হয়ে যায়। নাক ডাকার সমস্যা থেকে মুক্তি পেতে পাশ ফিরে তারপর ঘুমান। একটি বড় কোলবালিশ ব্যবহার করতে পারেন ঘুমানোর সময়। এতে পাশ ফিরে শুতে সুবিধা হবে।
২-উঁচু বালিশে ঘুমাতে পারেন। এক গবেষণায় দেখা গেছে, বিছানা থেকে ৪ ইঞ্চি উপরে মাথা রাখলে শ্বাস নিতে সুবিধা হয়। ফলে নাক ডাকার সমস্যা দূর হয়।
৩-নাক ডাকার সমস্যা থেকে মুক্তি দিতে পারে ঘরে তৈরি একটি স্প্রে। আধা চা চামচ মোটা দানার লবণের সঙ্গে ১ কাপ পানি মিশিয়ে স্প্রে বোতলে ভরে নিন। প্রতি রাতে ঘুমানোর আগে ২-৩ বার নাকের ফুটায় স্প্রে করুন। তবে ৪ অথবা ৫ রাতের বেশি একটানা এটি ব্যবহার করবেন না।
৪-অনেক সময় অ্যালার্জির কারণেও নাক ডাকার সমস্যা হতে পারে। ধুলাবালিজনিত অ্যালার্জি থেকে দূরে থাকতে নিয়মিত বিছানার চাদর ও বালিভের কভার বদলানোর অভ্যাস করুন।
৫-ঘুমানোর আগে কয়েক ফোঁটা মেন্থল তেল নাকের আশেপাশে ম্যাসাজ করে নিন। নাক ডাকার সমস্যা থেকে রেহাই মিলবে।
৬-অতিরিক্ত ওজনের কারণে নাক ডাকার সমস্যা হতে পারে। নিয়মিত ব্যায়াম ও খাদ্যাভ্যাস পরিবর্তন করে কমিয়ে ফেলুন বাড়তি মেদ।
৭-এক গবেষণায় দেখা গেছে, ধূমপায়ীদের মধ্যে নাক ডাকার প্রবণতা বেশি দেখা যায়। তাই ধূমপানসহ সবধরনের নেশাজাতীয় দ্রব্য ত্যাগ করুন।

আরও পড়ুন
আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।