রাঙ্গামাটিতে নেতৃত্ব বিকাশের মাধ্যমে নারীর ক্ষমতায়ন শীর্ষক প্রকল্পের কর্মশালা

রাঙ্গামাটি সদর উপজেলায় বেসরকারী উন্নয়ন সংস্থা উইমেন্স এডুকেশন ফর এডভান্সমেন্ট এন্ড এমপাওয়ারমেন্ট (উইভ) এনজিও এর উদ্যোগে ওমেন’স ভয়েস এন্ড লিডারসীপ- বাংলাদেশ প্রকল্প এবং ওমেন’স এমপাওয়ারমেন্ট কর্মসূচির আওতায় ‘‘নেতৃত্ব বিকাশের মাধ্যমে নারীর ক্ষমতায়ন’’ শিরোনামে শীর্ষক প্রকল্পের অবহিতকরণ কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

আজ বৃহস্পতিবার (২৫জুন ২০) সকালে রাঙ্গামাটি সদর উপজেলা পরিষদের সম্মেলন কক্ষে মানুষের জন্য ফাউন্ডেশন (এমজেএফ) এর সহযোগিতায় ও উইমেন্স এডুকেশন ফর এডভান্সমেন্ট এন্ড এমপাওয়ারমেন্ট (উইভ)’র উদ্যোগে ও বাস্তবায়নে এ অবহিতকরণ কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়।

এসময় রাঙামাটি সদর উপজেলা পরিষদের নির্বাহী কর্মকর্তা ফাতেমা তুজ জোহরা উপমা’র সভাপতিত্বে ও ‘‘নেতৃত্ব বিকাশের মাধ্যমে নারীর ক্ষমতায়ন’’ শীর্ষক প্রকল্পের সমন্বয়ক কৃত্তিকা চাকমা’র সঞ্চালনায় আয়োজিত কর্মশালায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, রাঙ্গামাটি সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান শহিদুজ্জামান মহসিন রোমান।

এছাড়াও বিশেষ অথিতি হিসেবে রাঙ্গামাটি সদর উপজেলা পরিষদের ভ্যাইস চেয়ারম্যান দুর্গেশ^র চাকমা, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান নাসরিন ইসলাম, উইমেন্স এডুকেশন ফর এডভান্সমেন্ট এন্ড এমপাওয়ারমেন্ট (উইভ)’র নির্বাহী কর্মকর্তা নাই উ প্রু মারমা মেরী, রাঙ্গামাটি সিএইচটি হেডম্যান নেটওয়ার্কের সহসভাপতি এ্যাভোকেট ববতোষ দেওয়ান, সাধারণ সম্পাদক শান্তি বিজয় চাকমা, রাঙ্গামাটি প্রাণী সম্পদ অধিদপ্তরের কর্মকর্তা প্রেমা মহাজন প্রমুখ কর্মশালায় বক্তব্য রাখেন। এছাড়াও আয়োজিত সভায়, রাঙ্গামাটি সদর উপজেলার ৬টি ইউনিয়নের চেয়ারম্যান, স্থানীয় জনপ্রতিনিধি, অন্যান্য হেডম্যান-কাবারী, বিভিন্ন সরকারি দপ্তরের কর্মকতা, সাংবাদিকসহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দরা উপস্থিত ছিলেন।

এসমময় প্রধান অতিথি শহিদুজ্জামান রোমান জানান, নারী-পুরুষের সমতা অর্জনের মাধ্যমে ক্ষুধা-দারিদ্র্যমুক্ত ও আত্মনির্ভরশীল বাংলাদেশ সৃষ্টিতে নারী নেতৃত্ব গড়ে তোলার লক্ষ্যে একদল নারীকে সংগঠিত ও ক্ষমতায়িত ও অনুপ্রাণিত করতে হবে। এই প্রকল্পের মাধ্যমে নারীর সাংবিধানিক ও মানবাধিকার সম্পর্কে ধারণা অর্জন ও নারী উন্নয়নে সরকার কর্তৃক গৃহীত উদ্যোগ পর্যালোচনা করতে পারবেন এবং সরকারি সুযোগ ও সেবায় নারীর অভিগম্যতা সৃষ্টিতে ভূমিকা রাখবেন বলেও তিনি আশা ব্যাক্ত করেন।

এসময় উইমেন্স এডুকেশন ফর এডভান্সমেন্ট এন্ড এমপাওয়ারমেন্ট (উইভ)’র নির্বাহী কর্মকর্তা নাই উ প্রু মারমা মেরী বলেন, ‘‘নেতৃত্ব বিকাশের মাধ্যমে নারীর ক্ষমতায়ন’’ শিরোনামে শীর্ষক প্রজেক্ট বিশ্বাস করে যে, ‘নারীরাই ক্ষুধামুক্তির মূল চাবিকাঠি’। কেননা, বিদ্যমান জেন্ডার অসমতা ও বৈষম্য ক্ষুধামুক্ত-আত্মনির্ভরশীল বাংলাদেশ গড়ার পথে একটি বড় অন্তরায়। সমাজের অর্ধেক জনগোষ্ঠী-নারীকে অবদমিত রেখে টেকসই উন্নয়ন অর্জন সম্ভব নয়। বস্তুত নারীদের অগ্রাধিকার দিয়ে বিদ্যমান বৈষম্য ও অসমতা দূর করার লক্ষ্যে কার্যক্রম পরিচালনায় বেসরকারী উন্নয়ন সংস্থা উইমেন্স এডুকেশন ফর এডভান্সমেন্ট এন্ড এমপাওয়ারমেন্ট (উইভ) এনজিও এই প্রজেক্ট প্রতিশ্রুতিবদ্ধ।

এছাড়াও নারীর সকল ক্ষেত্রে ক্ষমাতায়ন, স্থানীয় সরকারের বিভন্ন কাঠামোতে অংশগ্রহন ও কার্যকারিতা বৃদ্ধি করা। স্থানীয় শাসন পক্রিয়ায় নারীদের সমান অংশগ্রহন, প্রতিনিধিত্ব বিকাশ, অধিকতর নারীবান্ধব নীতিমালা ও আইনী কাঠামোর বিভন্ন পর্যায়ে নারীর ক্ষমতায়ন তরান্বিত করাসহ বিভন্ন বিষয়ে আলোচনা করা করা হয়। সভায় বিভিন্ন স্তরে নারী নেত্রীরা অংশগ্রহন করেন।

আরও পড়ুন
Loading...