বান্দরবানে বিশ্ব সাহিত্য কেন্দ্রের বই পড়া কর্মসূচিতে অংশ নিল চার শতাধিক শিক্ষার্থী

মোবাইল ফিনান্সিয়াল সার্ভিস প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান বিকাশ লিমিটেডের সহায়তায় বান্দরবানের তিনটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে বইপড়া কর্মসূচির যাত্রা শুরু করলো বিশ্বসাহিত্য কেন্দ্র।

মঙ্গলবার দুপুরে বান্দরবান অরুণ সারকি টাউন হলে ‘দেশভিত্তিক উৎকর্ষ কার্যক্রম’ কর্মসূচির আয়োজন করা হয়।

শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলো হলো : বান্দরবান সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়, বান্দরবান সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় এবং সাঙ্গু উচ্চ বিদ্যালয় ।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, বিকাশ লিমিটেড এর চীফ এক্সটার্নাল অ্যান্ড কর্পোরেট অ্যাফেয়ার্স অফিসার মেজর জেনারেল শেখ মো: মনিরুল ইসলাম । বান্দরবান সদর উপজেলার মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা সৈয়দ মো: তৈয়ব হোসেন এর সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, দুবারের এভারেস্ট বিজয়ী এম.এ মুহিত, বান্দরবান সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক দীপ্তি কণা দে, বান্দরবান সরকারি বালিক উচ্চ বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক দীপ্তি কণা দে, সাঙ্গু উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো: এমরান আলী, বান্দরবান প্রেস ক্লাবের সভাপতি মনিরুল ইসলাম মণু ।

বই বিতরণ অনুষ্ঠানে দুবারের এভারেস্ট বিজয়ী একমাত্র বাংলাদেশী এম এ মুহিত বলেন, বই পড়ার মাধ্যমে আমাদের আত্মার উন্নয়ন হয়, জ্ঞানের পরিধি এবং কল্পনা শক্তি বাড়ে । তাই জ্ঞান সমৃদ্ধ আলোকিত সমাজ গঠনে বই পড়ার অভ্যাস খুবই গুরুত্বপূর্ণ ।

বিকাশ লিমিটেড এর চীফ এক্সটার্নাল অ্যান্ড কর্পোরেট অ্যাফেয়ার্স অফিসার মেজর জেনারেল শেখ মো: মনিরুল ইসলাম বলেন, বিকাশ বিশ্বাস করে বই পড়ুয়াদের আলোয় সমাজ আলোকিত হয় । যারা বই পড়েন তারা আগামীতে দেশের উন্নয়নে যথার্থ পদক্ষেপ নেওয়ার লক্ষ্য খুঁজে পান ।

আলোচনা অনুষ্ঠান শেষে প্রতিটি স্কুলের ২০ জন করে মোট ৬০ জন শিক্ষার্থীর মাঝে বই তুলে দেয়া হয় ।

আরও পড়ুন

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।